প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

শাহেদকে মারধরের ভিডিও ভাইরাল (ভিডিও)

ডেস্ক রিপোর্ট : রিজেন্ট হাসপাতালের চেয়ারম্যান প্রতারক শাহেদকে গ্রেফতারের পরই তাকে লাঠি দিয়ে মারপিট করার একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। সময়টিভি

এর আগে নয়দিন ধরে অনুসরণ করে র‍্যাব। এরপরেই বুধবার ভোর ৫টার দিকে তাকে গ্রেফতারে সক্ষম হয় তারা। ধরা পড়ার খবর শুনে ঘটনাস্থলে ছুটে যান এলাকাবাসী। এসময় বেশকিছু কিশোর ক্ষুব্ধ হয়ে শাহেদকে মারধর শুরু করে।

এরকম একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এখন ভাইরাল। ভিডিওতে দেখা যায়, এক কিশোর লাঠি দিয়ে শাহেদকে আঘাত করছে। অপর একজন বলছে, সবাই মিলে একে মারা উচিত।

ভারতে পালাতে গিয়ে শাহেদ জিন্সের প্যান্ট ও নীল রঙের শার্টের ওপর কালো রঙের বোরকা পরে ছিলেন। তার মাথার সাদা চুল ছিল কালো। এছাড়াও গ্রেফতার এড়াতে আরো কিছু অভিনব পদ্ধতি অনুসরণ করেছিলেন শাহেদ।

করোনা টেষ্ট পরীক্ষা প্রতারণার অভিযোগে বুধবার (১৫ জুলাই) ভোরে সাতক্ষীরার সীমান্তের দেবহাটা থানার সাকড় বাজারের পাশে অবস্থিত লবঙ্গপতি এলাকা থেকে নৌকায় পালিয়ে থাকা অবস্থায় তাকে গ্রেফতার করে র‌্যাব। পরে সেখানে থেকে তাৎক্ষণিক হেলিকপ্টারে করে ঢাকা নিয়ে আসা হয়। বর্তমানে শাহেদকে ঢাকার র‌্যাব সদর দপ্তরে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

গত ৬ জুলাই করোনা পরীক্ষার ভুয়া রিপোর্ট দেয়ার অভিযোগে র‍্যাব উত্তরার রিজেন্ট হাসপাতালে অভিযান চালায়। এরপর রিজেন্ট হাসপাতালের উত্তরা ও মিরপুর শাখা সিলগালা করে দেয়া হয়। ৭ জুলাই করোনা পরীক্ষা না করেই সার্টিফিকেট প্রদানসহ বিভিন্ন অভিযোগে রিজেন্ট হাসপাতালের বিরুদ্ধে উত্তরা পশ্চিম থানায় মামলা করে র‌্যাব।

মামলায় রিজেন্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান শাহেদ করিমকে প্রধান আসামি করে ১৭ জনের নাম উল্লেখ করা হয় এজাহারে। এরপর থেকেই পালিয়ে ছিলেন সাহেদ। তাকে গ্রেফতারে দেশের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালায় র‌্যাব। অবশেষে সাতক্ষীরা থেকে তাকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয় তারা।

শাহেদকে এলাকাতেই পিটুনি

Gepostet von Shaheen Monir am Dienstag, 14. Juli 2020

 

সর্বাধিক পঠিত