প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] ঠাকুরগাঁওর শিমুল আর চাকরি খোঁজেন না, চাকরিই খোঁজে তাকে

সালেহ্ বিপ্লব: [২] মোস্তাফিজুর রহমান শিমুল। বিএসসি ইঞ্জিনিয়ার, ২০১১ সালে পাস করেছেন। চাকরি না পেয়ে ২০১৬ সালে প্রবাসে পাড়ি দেন। কাজ নেন কাতারের একটি পার্কিং টাইলসের কোম্পানিতে। বাসস বাংলা

[৩] সেখানে তিন বছর কাজ করে শিমুল এই পণ্যটি নিজেই তৈরির চিন্তা করেন। তিনি বলেন, ‘পার্কিং টাইলসে ব্যবহৃত প্রধান কাঁচামাল সিমেন্ট, বালু ও নুড়ি পাথর আমার নিজের জেলাতেই সহজলভ্য। ছোট আকারে শুরু করতে পুঁজিও তেমন লাগবে না। তখনই দেশে ফিরে এমন একটি কারখানা গড়ে তোলার সিদ্ধান্ত স্থির করি।’ নিউজ ২৪

[৪] ২০১৯ সালে দেশে ফেরেন শিমুল। বাজার যাচাই করে কারখানা প্রতিষ্ঠার প্রস্তুতি নিতে থাকেন। তার ভাষায়, ২ লাখ টাকা পুঁজি নিয়ে ২০২১ সালের ১ জানুয়ারি বাণিজ্যিকভাবে উৎপাদন শুরু করি। নিজ জেলায় ব্যাপক সাড়া পাই। ধীরে ধীরে পার্শ্ববর্তী জেলায় যাওয়া শুরু করে আমার পণ্য। এখন দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে অর্ডার পাচ্ছি। টপ স্টোরি বিডি

[৫] ঠাকুরগাঁও শহরের শান্তিনগর এলাকায় শিমুলের ব্লক পার্কিং টাইলসের কারখানা। প্রথমে ১ জন শ্রমিককে কাজ শিখিয়ে পথচলা শুরু, এখন শ্রমিক ১৭ জন। বিডি জার্নাল

[৬] ঠাকুরগাঁও চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ড্রাষিট্রজের এর সভাপতি হাবিবুল ইসলাম বাবলু শিমুলকে সরকারিভাবে সহযোগিতা করে উৎসাহ দেওয়া উচিত। দৈনিক রংপুরডটকম

[৭] ঠাকুরগাঁও সংবাদডটকম জানায়, বিসিক শিল্প নগরীর উপ-ব্যবস্থাপক মো. আমিনুল ইসলাম বলেন, ‘আমরা চাই ভালো ভালো উদ্যোক্তা সৃষ্টি হোক। শিমুলের উদ্যােগ বেশ সম্ভাবনাময়। সরকারি পৃষ্ঠপোষকতা পাওয়ার ব্যাপারে আমরা সহযোগিতা করবো।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত