প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] নারায়ণগঞ্জে আওয়ামী লীগ নেতার গাড়ি চালকের কু-প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় বিধবার শরীরে আগুন

মনজুর আহমেদ, নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি :[২] নারায়ণগঞ্জে কু-প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় মাহিনুর বেগম (৩৮) নামের এক গার্মেন্টকর্মীর শরীরে পেট্রোল ঢেলে আগুন দিয়েছে আওয়ামীলীগ নেতার গাড়ির চালক নূরুল ইসলাম। রোববার রাত সাড়ে ৭ টার দিকে ফতুল্লার দাপা ইদ্রাকপুরস্ত পাইলট স্কুল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। আহত মাহিনুর বাড়ি বরিশালে। সে পাইলট স্কুল এলাকার আলী আহম্মদের বাড়িতে ভাড়াটিয়া এবং মেরিনা গার্মেন্টে চাকরী করে।

[৩] এলাকাবাসীরা জানায়, মাহিনুর বেগম স্বামী পরিত্যক্তা। জীবিকা নির্বাহের জন্য মেরিনা গার্মেন্টে চাকরি নিয়েছে। এদিকে জেলা আওয়ামীলীগ সাংগঠনিক সম্পাদক ও ফতুল্লা থানা যুবলীগের সভাপতি মীর সোহেলের গাড়ির চালক নূরুল ইসলাম সেই নারীর প্রতি কু-নজর দেয়। ক্ষমতার প্রভাবে বখাটে লম্পট নারীলোভি নুরুল ইসলাম প্রায় সময় মাহিনুরকে কু-প্রস্তাব দিতো। এতে রাজি হয়নি সে।

[৪] এ ঘটনা জানাজানি হলে, নূর ইসলামের স্ত্রী হাসিনা বেগম মারধরসহ এলাকা ছাড়ার হুমকি দেয় মাহিনুরকে। এ বিষয়ে থানায় অভিযোগ করার সিদ্ধান্ত নেয়। অভিযোগের বিষয়টি জানতে পেরে মাহিনুরের পথরোধ করে নুর ইসলাম। কিছু না বলেই বোতল থেকে জ্বালানী তেল মাহিনুরের মাথায় ও শরীরে ঢেলে দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেয়। মাহিনুর চিৎকার করে মাটিতে গড়াগড়ি করে নিজে বাচার চেষ্টা করে। এসময় স্থানীয় লোকজন মাহিনুরকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করে। আর নুরুল ইসলাম পালিয়ে যায়।

[৫] ফতুল্লা মডেল থানার ওসি আসলাম হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, নুরুল ইসলাম প্রায় সময় মাহিনুরকে উত্ত্যক্ত করতো এবং কু-প্রস্তাব দিতো। প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় মাহিনুরের শরীরে পেট্রোল ঢেলে আগুন ধরিয়ে দিয়ে পালিয়ে যায়। আর এ ঘটনায় প্রত্যক্ষদর্শীরা নুরুল ইসলামের কথা বলছে। অভিযুক্তকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। সম্পাদনা : রাকিবুল

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত