প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সততার নজির গড়লেন মোটর মেকানিক, ফিরিয়ে দিলেন ৭৩ হাজার টাকা

ডেস্ক রিপোর্ট : বরিশালের গৌরনদীতে রাস্তায় কুড়িয়ে পাওয়া টাকা ভর্তি ব্যাগ মালিকের কাছে ফিরিয়ে দিলেন মোটরসাইকেল মেকানিক আল আমীন বেপারী (২৫)। ব্যাগের মধ্যে ছিল নগদ ৭৩ হাজার টাকা, চেক বইসহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ কাগজপত্র। বাংলাদেশ প্রতিদিন।

রবিবার দুপুরে টাকাভর্তি ব্যাগটি প্রকৃত মালিক ওই উপজেলার একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্পের মাঠ কর্মকর্তা মো. রাকিব হোসেনের কাছে হস্তান্তর করেন মোটরসাইকেল মেকানিক আল আমীন বেপারী। তার সততায় মুগ্ধ হয়ে এ সময় আল আমীনের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন ওই কর্মকর্তা।

আল আমীন ওই উপজেলার চরগাধাতলী গ্রামের মৃত দলিল উদ্দিন বেপারীর ছেলে। গৌরনদী বন্দরে মোটর সাইকেলের একটি গ্যারেজ রয়েছে তার।

ব্যাগের মালিক মো. রাকিব হোসেন জানান, তিনি ফিল্ড ভিজিট শেষে সকালে মোটর সাইকেলে আল আমীন বেপারীর গ্যারেজের সামনের রাস্তা দিয়ে অফিসে ফিরছিলেন। তার কাছে একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্পের কয়েকটি রেজিস্ট্রার বই, বিভিন্ন কাগজ পত্র ও টাকা ভর্তি ব্যাগটি ছিল। ব্যাগের মধ্যে নগদ ৭৩ হাজার টাকা, চেক বই ও জাতীয় পরিচয় পত্র সহ বিভিন্ন কাগজপত্র ছিল। পথিমধ্যে টাকা ভর্তি ব্যাগটি পড়ে যায়। পরে যখন ব্যাগের কথা মনে হয়, তখন দেখেন সঙ্গে ব্যাগটি নেই। ব্যাগটি হন্যে হয়ে খুঁজতে থাকেন। পরে জাতীয় পরিচয়পত্র থেকে নম্বর পেয়ে তার মুঠোফোনে কল দিয়ে ব্যাগটি ফেরত দেন মোটরসাইকেল মেকানিক আল আমীন বেপারী। তার কথা চিরদিন মনে রাখাবেন তিনি। আল আমীন বেপারীর সততার দৃষ্টান্ত অন্যান্যরাও অনুকরণ করবে বলে তিনি আশা করেন।

আল আমীন বেপারী জানান, কুড়িয়ে পাওয়া টাকার ব্যাগটি তিনি হাতে না নিলে হয়তো অন্য কেউ নিয়ে যেত। প্রকৃত মালিককে টাকাটা ফেরত দিতে পেরে আনন্দ লাগছে তার।

তিনি বলেন, নগদ টাকা ছাড়াও ব্যাগটির মধ্যে একটি চেক বই ছিল। সেখানে কয়েকটি পাতায় টাকার অঙ্ক উল্লেখ না থাকলেও স্বাক্ষর ছিল। কোন খারাপ লোকের হাতে ব্যাগটি পড়লে ওই চেক দিয়ে মালিককে বেকায়দায় ফেলতে পারতো। যার ব্যাগ তার কাছে ফেরত দিতে পেরে আত্মতৃপ্ত তিনি।

গৌরনদী থানার এসআই মো. তৌহিদুজ্জামান জানান, এ ধরনের একটি ঘটনা শুনেছেন। সৎ লোক আছে বলেই সমাজটা টিকে রয়েছে। এ ধরনের মানুষের সংখ্য যত বাড়বে, সমাজ তত অপরাধ মুক্ত হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত