শিরোনাম
◈ মার্কিন পাইলটের মৃত্যু, ইউনাইটেড হাসপাতালের অবহেলাকে দায়ী করেছেন বোন  ◈ ২ ফেব্রুয়ারি দেশের প্রথম পাতাল মেট্রো রেলের নির্মাণ কাজ উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী  ◈ দৈনিক সমকাল পত্রিকার বিরুদ্ধে প্রেস কাউন্সিলে ঢাকা ওয়াসার মামলা ◈ সরকার ইসলামের বিরুদ্ধে কিছু করেনি, করবেও না: শিক্ষামন্ত্রী ◈ পেশোয়ারের মসজিদে শক্তিশালী বিস্ফোরণে নিহত ২৮, আহত ১৫০ ◈ জমজমের পানি বিক্রি বন্ধের নির্দেশ ভোক্তা অধিদপ্তরের ◈ ডান্ডাবেড়ি পরানো নিয়ে নীতিমালা প্রণয়নে হাইকোর্টের রুল ◈ চৌগাছার সাবেক পুলিশ কর্মকর্তার কারাদণ্ড ◈ অনির্বাচিত লোক দিয়ে কখনো দেশের উন্নতি হয় না:  প্রধানমন্ত্রী   ◈ ১১ উন্নয়ন প্রকল্পের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত : ২৬ নভেম্বর, ২০২২, ০৮:৩৪ রাত
আপডেট : ২৬ নভেম্বর, ২০২২, ০৮:৩৬ রাত

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

 গুলিতে নিহত বাংলাদেশি মরদেহ ফেরত দেয়নি বিএসএফ

মরদেহ

এমরান পাটোয়ারী:  ১২ দিন  পেরিয়ে গেলেও বাংলাদেশি কৃষক মেজবাহ উদ্দিনের  মরদেহ ফেরত দেয়নি ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ)। পরশুরামের বাঁশপদুয়া সীমান্ত এলাকায় বিএসএফের গুলিতে ওই কৃষক নিহত হন বলে দাবি স্বজনদের। তার মরদেহ ফেরত পাওয়ার অপেক্ষায় সীমান্তের কাঁটাতারের বেড়ার দিকে তাকিয়ে রয়েছেন স্ত্রী ও চার কন্যা সন্তানরা।

পুলিশ সূত্র জানায়,  বুধবার (১৬ নভেম্বর) দিবাগত রাত ৩টার দিকে বিজিবি ও বিএসএফের মধ্যে সমাঝোতা বৈঠকের পর ভারতের সীমারেখার মধ্যে পড়ে থাকা মরদেহটি বিএসএফ নিয়ে যায়। পরদিন বৃহস্পতিবার মরদেহ ফেরত দেওয়া হবে বলে বৈঠকে প্রতিশ্রুতি দিলেও বিএসএফ এখনো মরদেহ ফেরত দেয়নি।

নিহত মেজবাহ উদ্দিনের স্ত্রী মনোয়ারা বেগম বলেন, গত ১৩ নভেম্বর সোমবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে আমার স্বামী বাঁশপদুয়া গ্রামের ভারতীয় সীমান্ত সংলগ্ন এলাকায় ধান কাটতে যান।

এসময় বিএসএফ সদস্যরা তাকে জোর করে ধরে নিয়ে যান। পরে ঘটনাস্থলে তাকে কিল-ঘুষি এবং লাথি মারতে দেখা যায়। কিছুক্ষণ পর তিনটি গুলির শব্দ শোনা যায়। এরপর বিষয়টি এলাকার লোকজন ও স্থানীয় বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) সীমান্ত ফাঁড়ি এবং পরশুরাম থানা পুলিশকে মৌখিকভাবে জানানো হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গত বুধবার সকালে মেজবাহ উদ্দিনের মরদেহ ভারতীয় সীমান্তের একশ গজের মধ্যে দেখতে পেয়ে স্থানীয়রা বিজিবিকে জানান।
ফেনী ৪ বিজিবির গুথুমা সীমান্ত ফাঁড়ি সূত্র জানায়, বিএসএফের সঙ্গে মরদেহ হস্তান্তরের ব্যাপারে যোগাযোগ ও পতাকা বৈঠক হয়েছে। প্রথমে তারা অস্বীকার করে বিষয়টি। পরে গত বুধবার দিবাগত রাত ৩টার দিকে বিজিবি ও বিএসএফের সমাঝোতার পর ভারতের সীমারেখার মধ্যে থাকা মরদেহটি বিএসএফ নিয়ে যায়। 

পরদিন বৃহস্পতিবার (২৪ নভেম্বর) মরদেহ ফেরত দেওয়া হবে বলে বৈঠকে প্রতিশ্রুতি দিলেও ফেরত দেয়নি। ফেনী ৪ বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্নেল এ.কে.এম আরিফুল ইসলাম বলেন, ময়নাতদন্ত ও আনুষ্ঠানিকতা শেষে মরদেহ হস্তান্তরের কথা রয়েছে। সম্ভবত বিএসএফ আইনি প্রক্রিয়া শেষ করতে পারেনি। 

প্রতিনিধি/এমএইচ/এএ

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়