প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] ইউড্রেনে নিরসন হলো ৭০ একর ফসলী ক্ষেতের জলাব্ধতা

আবু হাসাদ : [২] পুঠিয়া: একটি ইউড্রেনের অভাবে একযুগ থেকে দীর্ঘ জলাব্ধতায় ডুবে থাকে ভাটার বিলের প্রায় ৭০ একর ফসলি জমি। স্থানীয় চাষিরা তাদের ফসল রক্ষায় একটি ইউড্রেনের জন্য বছরের পর বছর থেকে ঘুরেছেন বিভিন্ন দপ্তরে।

[৩] অবশেষে তাদের দীর্ঘদিনের কাঙ্খিত ইউড্রেন নির্মাণে এগিয়ে এসেছেন উপজেলা চেয়ারম্যান জিএম হীরা বাচ্চু।

[৪] বুধবার (৯ জুন) দুপুরে রাজশাহীর পুঠিয়া সদর এলাকার কাঠালবাড়িয়া রামজীবনপুর সড়কের ইউড্রেনের নির্মাণের আনুষ্ঠিক উদ্বোধন করা। এ সময় স্থানীয় শতাধিক চাষি ও বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতাকমীরা উপস্থিত ছিলেন।

[৫] উপজেলা উপসহকারী প্রকৌশরী কোহিনুর বেগম বলেন, এডিপির অর্থায়নে ঘোষপুকুর পাড়ের দক্ষিন পাশে এই ইউড্রেনটি নির্মান করা হচ্ছে। প্রায় ২০ ফিট লম্বা ইউড্রেনটি নির্মানে ব্যায় হচ্ছে এক লাখ ২০ হাজার টাকা। আর আগামি বর্ষা মৌসুমের আগেই নির্মাণ কাজ শেষ হবে।

[৬] আজিজুল ইসলাম নামের একজন চাষি বলেন, বিগত সময়ে ওই স্থানে একটি কালভাট ছিল। যার মাধ্যমে বর্ষার সময় এই এলাকার অতিরিক্ত পানি বেরিয়ে যেত। কালভাটটি ছিল ক্ষমতাসিন দলের এক নেতার জমিতে। পরে স্থানীয় একটি ইটভাটার মালিকের সাথে চুক্তি করে কালভাটের মুখ বন্ধ করে দেয়া হয়। এরপর প্রায় একযুগেরও বেশী সময় থেকে ভাটারবিলে বছরের ১০ মাস জলাব্ধতায় থাকে। পুরো বিলে মাত্রাতিরিক্ত পানির কারণে চাষিরা কোনো ফসলই উৎপাদন করতে পারে না।

[৭] তবে এবার কৃষকদের দাবী পুরণে উপজেলা চেয়ারম্যান স্থায়ীভাবে একটি ড্রেন নির্মান করার পদক্ষেপ নিয়েছেন।

[৮] এ ব্যাপারে উপজেলা চেয়ারম্যান জিএম হীরা বাচ্চু বলেন, একটি ইউড্রেনের অভাবে পুরো বিল ফসলহানী হতে দেয়া যায় না। আমি নির্বাচিত হওয়ার পর চাষিদের দুর্ভোগ নিরসন করার কথা দিয়েছিলাম। আজ তা পুরণ করা হলো।

[৯] শুধু এই বিল নয়, এর আগে শিলমাড়িয়া ইউনিয়নের কয়েকটি বিলের জলাবদ্ধতা নিরসনে প্রায় ৯ কিলোমিটার খাল খনন করা হয়েছে। বাকি বিল গুলোতেও পর্যায়ক্রমে জলাব্ধতা নিরসনে কাজ করা হবে বলে জানান তিনি।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত