প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] রাজবাড়ির দৌলতদিয়া ঘাটে ডুবে যাওয়া মাইক্রোবাসের চালকের মরদেহ উদ্ধার

মো.ইউসুফ মিয়া : [২] বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৮ টার দিকে দৌলতদিয়া ঘাটের ৭ নং পন্টুনের কাছ থেকে মারুফ হোসেনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। নিহত মারুফ হোসেন সিলেটের জকিগঞ্জ উপজেলার সুন্দরারচক গ্রামের মৃত মানিক হোসেনের ছেলে। তিনি ঢাকার রামপুরাতে থাকতেন।

[৩] গাড়ির মালিক মাকসেদুর রহমান রিতুর বিদেশ থেকে আসা শ্যালককে চুয়াডাঙ্গা পৌঁছে দিয়ে ঢাকায় ফিরছিলেন।

[৪] মরদেহ উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন দৌলতদিয়া নৌপুলিশ ফাঁড়ির অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোন্নাফ শেখ।

[৫] তিনি জানান, সকাল ৭ টা ৫০ মিনিটের দিকে স্থানীয়দের মাধ্যমে খবর পাই। খবর পেয়ে সাড়ে ৮ টার দিকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়েছে। মরদেহটি উদ্ধারের পর নিহত মারুফের স্বজনরা মরদেহ শনাক্ত করেন। তারা মঙ্গলবার (১১ মে) রাত থেকেই ঘাট এলাকাতে অপেক্ষা করছিল। প্রশাসনের মাধ্যমে মরদেহটি স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হবে। উদ্ধার কাজে গোয়ালন্দ ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরাও সহযোগিতা করেছেন বলে জানান তিনি।

[৬] উল্লেখ্য, মঙ্গলবার (১১ মে) চুয়াডাঙ্গা থেকে ছেড়ে আসা একটি মাইক্রোবাস বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে দৌলতদিয়া ঘাটের ৫ নং পন্টুনের তার ছিড়ে গেলে মাইক্রোবাসটি নদীতে পড়ে ডুবে যায়। সেই থেকে মাইক্রোবাসের চালক নিখোঁজ ছিল। তবে মাইক্রোবাসে কোন যাত্রী ছিল না বলে স্থানীয়রা জানান। সম্পাদনা: জেরিন আহমেদ

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত