প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] কুষ্টিয়ায় গড়াই খননের বালির নিচে ডুবলো অর্ধশত বসত বাড়ি

আব্দুম মুনিব:[২] গঙ্গা-কপোতাক্ষ সেচ প্রকল্পের খামখেয়ালীপনায় জেলার কুমারখালী উপজেলার চাপড়া ইউনিয়নের বহলা গোবিন্দপুর এলাকায় অর্ধ শত বসত বাড়ি বালির নিচে চাপা পড়েছে। শতাধিক পরিবার ঘরবাড়ী ছেড়ে অন্য এলাকায় দুর্বিসহ জীবন কাটাচ্ছে। জানা যায়, সেচ প্রকল্পের খাল খননের জন্য খালের তীরবর্তী সমস্ত জলাশয় ভরাট করার প্রকল্প নেয়া হয়েছিল। বালি দিয়ে জলাশয় ভরাটের শুরুতে প্রকল্পের অধিগ্রহণ করা সম্পত্তির উপর বালি ফেলে। পরবর্তিতে বহলা গোবিন্দপুর গ্রামের প্রায় ৪৬টি বসতবাড়ীর ঘরের চাল পর্যন্ত বালি দিয়ে ভরাট করে ফেলেছে।

[৩] বালিতে বসবাসের অনুপযোগী হয়ে গেছে বসতবাড়ীগুলো। রাতের আঁধারে দ্রুত বালি ফেলায় অনেকেই আতংকিত হয়ে কাঁচা বাড়িঘর ফেলে রেখে অন্যত্র চলে গেলেও বেশিরভাগ মানুষ রয়েছে খোলা আকাশের নিচে। এ ছাড়া বালুর নিচে চাপা পড়েছে প্রায় অর্ধশত টিউবওয়েল। ফলে বিশুদ্ধ খাবার পানির সংকটও সৃষ্টি হয়েছে। শুধু তাই নয়, বালুতে চাপা পড়েছে কবরস্থান।

[৪] এ বিষয়ে চাপড়া ইউপি চেয়ারম্যান মনির হোসেন রিন্টু বলেন, জিকের খাল খননের সময় পাড় বাঁধার জন্য ড্রেজার দিয়ে জলাশয় ভরাট করার কথা। কিন্ত পানি উন্নয়ন বোর্ড খালের পাশে তাদের অধিগ্রহণ করা সম্পত্তি ছাড়াও জনগনের ক্রয়কৃত সম্পত্তির উপর বসত বাড়ীতে বালু ফেলেছে। খনন প্রকল্পের নির্বাহী প্রকৌশলী তাজমীর হোসেন জানান, নদীর তীরবর্তী অধিগ্রহণকৃত জমির উপর জলাশয় ভরাট করার নির্দেশ দেয়া হয়েছিলো। কাউকে উচ্ছেদের উদ্যেশে কাজটি করা হয়নি।সম্পাদনা:অনন্যা আফরিন

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত