প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

প্রকৃত বয়স জানালেন ‘শিশুবক্তা’ রফিকুল

অনলাইন ডেস্ক : ওয়াজ মাহফিল করে দেশে আলোচিত শিশুবক্তা রফিকুল ইসলাম। শিশুবক্তা হিসেবে তার পরিচিত ঘটে। গতকাল বৃহস্পতিবার নতুন করে আলোচনায় আসেন শিশুবক্তা হিসেবে পরিচিত রফিকুল ইসলাম। যদিও তিনি সোশ্যাল প্ল্যাটফরমগুলো ব্যাপকভাবে পূর্ব থেকেই পরিচিত। আরটিভি

রাজধানীর মতিঝিল শাপলা চত্বর এলাকায় গতকাল বিক্ষোভে পুলিশের সঙ্গে যুব অধিকার পরিষদের ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া চলছে। এসময় পুলিশ বিক্ষোভে অংশ নেওয়া রফিকুল ইসলাম ওরফে শিশুবক্তাকে আটক করে। পরে অবশ্য রাতেই রফিকুল ইসলামকে ছেড়ে দেয় পুলিশ।

দিনভর আলোচনায় থাকা রফিকুল ইসলামকে নিয়ে দেশের গণমাধ্যম ও সোশ্যাল হ্যান্ডেলে আলোচনা চলতে থাকে। এসময় অনেকের মনেই প্রশ্ন জেগেছে- কে এই শিশুবক্তা। শিশুবক্তা হিসেবে পরিচিত হলেও তিনি কিন্তু শিশু নন। তবে শিশুবক্তা শব্দটি ব্যবহার হয় বিভিন্ন সময়।

রফিকুল ইসলাম রাজধানীর বারিধারায় মাদানী এভিনিউয়ের পাশে অবস্থিত জামিয়া মাদানীয়া বারিধারা মাদ্রাসায় দাওরায়ে হাদিস পড়েছেন। এছাড়া তিনি বিএনপি-জামায়াত জোটের শরিকদল জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের অঙ্গসংগঠন যুব জমিয়তের নেত্রকোনা জেলার সহ-সভাপতি।

এক ওয়াজ মাহফিলে মিজানুর রহমান আজহারির সমালোচনা করে তার প্রকৃত বয়স উল্লেখ করে বক্তব্য দিয়েছিলেন। বলেছিলেন, ‘আমাকে শিশুবক্তা বানিয়ে রাখা হয়। আজহারি সাহেবের দ্বারা যদি ইসলামের খেদমত হয় তাহলে আমার কোনো আপত্তি নাই। আজহারি সাহেব ১৯৯২ সালে জন্মগ্রহণ করেছেন, আর আমি ১৯৯৫ সালে জন্মগ্রহণ করেছি। এখনো আমাকে শিশুবক্তা বানিয়ে রাখবেন কেন? আমাদের বয়স মাত্র তিন-চার বছরের ব্যবধান। আল্লাহ তাআলা বানাইছে। দেখতে এমন লাগে। আমার করার কিছু আছে? এজন্য আমি শুকরিয়া আদায় করি।

নিজের পড়াশোনা নিয়ে বলেন, আমি ছয় বছর বয়স পর্যন্ত বাড়িতে বাংলা ইংরেজি অঙ্ক পড়েছি ও শিখেছি। তারপর ক্লাস সিক্স পর্যন্ত স্কুলে পড়েছি। এরপর মাদ্রাসায় ভর্তি হই। নূরানিতে পড়েছি এক বছর। আল্লাহর রহমতে দুই বছরে হেফজ শেষ করেছি। এখানে তিন বছর, আগের ১২ বছর মোট হলো ১৫ বছর। এরপর আট বছর কিতাবখানায় পড়েছি। কেন বলতেছি এগুলা? ইউটিউবে আমার নামে এতো মিথ্যা ছড়ানো হচ্ছে। আমি নিজেকে জ্ঞানী মনে করি না।

রফিকুল ইসলামের গ্রামের বাড়ি নেত্রকোনায়। থাকেন ঢাকার অদূরে গাজীপুরে। তার যেমন বিশাল পরিচিতি রয়েছে, তেমনি সমালোচকও রয়েছে অনেক। এরইমধ্যে গতকাল আটক হয়ে নতুন করে আলোচনায় আসেন রফিকুল ইসলাম।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত