প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] পিরোজপুরে কর্মচারীকে ধর্ষণের অভিযোগে চিকিৎসক গ্রেপ্তার

পিরোজপুর প্রতিনিধি: [২] জেলায় কর্মচারীকে ধর্ষণের অভিযোগে এক এমবিবিএস চিকিৎসককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ ঘটনায় ধর্ষণের শিকার ওই তরুণী বৃহস্পতিবার রাতে পিরোজপুর সদর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা দায়েরের পর অভিযুক্ত চিকিৎসককে আটক করেছে পুলিশ।

[৩] অভিযুক্ত চিকিৎসক শাহ আলম (৫৫), পিরোজপুর শহরে একটি ব্যক্তিগত চেম্বারে চিকিৎসা সেবা দিতেন। সেখানেই এ ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ করেছেন ওই তরুণী।

[৪] গত ১৭ই জুন পিরোজপুর শহরে শাহ আলম এর ব্যক্তিগত চেম্বারে সাত হাজার টাকা বেতনে চাকরি নেন ওই তরুণী। এরপর সেখানে সে প্রতিদিন সকাল ৯ টা থেকে বিকেল ৩ টা পর্যন্ত ডিউটি করতেন তিনি। গত বুধবার দুপুরে চেম্বারে ওই মেয়েটিকে একা পেয়ে ধর্ষণ করে ডা: শাহ আলম। এ সময় ধর্ষণে বাধা দেওয়ায় এবং অপকর্মের ছবি মেয়েটি তার ব্যক্তিগত মোবাইল ফোনে তুলে ফেলায় মোবাইলটি ভেঙে ফেলে শাহ আলম। এছাড়া মেয়েটিকে মারধোরও করে সে।

[৫] মেয়েটির ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য পিরোজপুর সিভিল সার্জন অফিসে পাঠানো হয়েছে বলে জানান পিরোজপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মুহাঃ নূরুল ইসলাম বাদল। এছাড়া অভিযুক্তকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে বলেও জানান তিনি। সম্পাদনা: জেরিন আহমেদ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত