প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] ১০ কোটি টাকার নকল ওষুধ জব্দ, দুইজনের কারাদন্ড

বরিশাল অফিস : [২] বরিশাল নগরীর সাগরদী এলাকা থেকে এসিআই, কেমিস্ট, জেসন, গ্লোব ফার্মাসিউটিক্যালস লিমিটেডসহ দেশীয় ও ভারতীয় বেশ কিছু কোম্পানির আনুমানিক প্রায় ১০ কোটি টাকা মূল্যের নকল ওষুধ ও প্রসাধনী সামগ্রীসহ বিভিন্ন সরঞ্জাম জব্দ করা হয়েছে।

[৩] এ ঘটনায় দুইব্যক্তিকে এক বছর করে কারাদন্ড ও পাঁচ লাখ টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে। সোমবার দিবাগত রাতে জেলা প্রশাসনের মিডিয়া সেল সূত্রে জানা গেছে, ওইদিন দুপুরে নদী বন্দর এলাকায় জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জিয়াউর রহমান অভিযান চালিয়ে ঘটনার মূলহোতা মাসুম বিল্লাহ (২৭) ও তার সহযোগি নুরে আলমকে (২৩) আটক করেছে।

[৪] কেমিস্ট ল্যাবরেটরিজ লিমিটেডের জেনারেল ম্যানেজার কাজল ঘোষ জানান, গোপন সূত্রে তারা জানতে পারেন সোমবার বরিশাল নদী বন্দর থেকে একটি চক্র তাদের কোম্পানির লোগোযুক্ত কাগজের প্যাকেট (কার্টুন) সংগ্রহ করছে। কিন্তু তাদের পক্ষ থেকে এসব প্যাকেটের কোনো অর্ডার ছিলোনা। ফলে তাৎক্ষণিকভাবে তারা বিষয়টি সংশ্লিষ্ট প্রশাসনকে অবহিত করেন এবং তাদের সহযোগিতায় নদী বন্দর এলাকা থেকে ওইসব প্যাকেটসহ মাসুম বিল্লাহ ও নুরে আলমকে আটক করা হয়।

[৫] পরে তাদের দেওয়া তথ্যানুযায়ী জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে ড্রাগ ও পুলিশ প্রশাসনের সহযোগিতায় নগরীর সাগরদী এলাকার টিয়াখালি সড়কের ডাক্তারবাড়ি সংলগ্ন একটি টিনশেড বাড়িতে অভিযান চালানো হয়। সেখানে একটি কারখানায় নকল ওষুধ বানানো হচ্ছিলো। কারখানা থেকে বিপুল পরিমাণ নকল ওষুধ জব্দ করা হয়েছে।

[৬] এ ব্যাপারে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জিয়াউর রহমান জানান, টিনশেড ঘরটিতে অভিযান চালিয়ে প্রায় ১০ কোটি টাকা মূল্যের নকল ওষুধ, প্রসাধনীসহ অন্যান্য সরঞ্জামাদী জব্দ করা হয়েছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত দুইজনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার পাশাপাশি নকল ওষুধ প্রস্তুতকরণের কারখানাটি সিলগালা করা হয়েছে। এ কাজের সাথে আর কারা জড়িত তাদের খোঁজা হচ্ছে।

[৭] ওষুধ প্রশাসনের তত্ত¡বধায়ক অদিতি স্বর্ণা জানান, এ কারখানায় এসিআই, কেমিস্ট, জেসন, গ্লোব ফার্মাসিউটিক্যালস লিমিটেডসহ দেশীয় বিভিন্ন কোম্পানির নকল ওষুধ পাওয়া গেছে। পাশাপাশি ভারতীয় গোদরেজ, গুরুদেব, ডাবর আমলার সিল বসানো বিভিন্ন পণ্যও পাওয়া গেছে। প্রাথমিকভাবে গ্রেফতারকৃতদের কাছ থেকে জানা গেছে, তারা এখানে বসেই এসব কোম্পানির পণ্য তৈরি করে পার্শ্ববর্তী বিভিন্ন জেলায় সেগুলো বিক্রি করে আসছিলো।

সর্বাধিক পঠিত