শিরোনাম

প্রকাশিত : ০২ আগস্ট, ২০১৮, ১২:৫৮ দুপুর
আপডেট : ০২ আগস্ট, ২০১৮, ১২:৫৮ দুপুর

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

শিক্ষার্থীরা দুর্ঘটনায় নিহত হননি, তাদের হত্যা করা হয়েছে : ছাত্র ঐক্য

রফিক আহমেদ : নাগরিক ছাত্র ঐক্যের আহ্বায়ক নাজমুল হাসান বলেছেন, দুই শিক্ষার্থী কোনো সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হননি, তাদের হত্যা করা হয়েছে। রাষ্ট্রের অব্যবস্থাপনাই এর জন্য দায়ী। রাষ্ট্রের দায়িত্বশীলরা এর দায় এড়াতে পারেন না। এই ঘটনায় ৩০২ ধারায় হত্যা মামলা নিতে হবে। বুধবার জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বিক্ষোভ মিছিল শেষে মানববন্ধনে বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

নাজমুল হাসান বলেন, দুই শিক্ষার্থী হত্যা রাষ্ট্রের অব্যবস্থাপনাই এর জন্য দায়ী। রাষ্ট্রের দায়িত্বশীলরা এর দায় এড়াতে পারেন না। এই ঘটনায় ৩০২ ধারায় হত্যা মামলা নিতে হবে। সড়কে দুই শিক্ষার্থী নিহতের ঘটনায় সাধারণ ছাত্রদের ওপর পুলিশি নির্যাতন ও কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের ওপর হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল ও মানববন্ধন করেছে নাগরিক ছাত্র ঐক্য।

সরকার ছাত্রদের ওপর হৃদয়হীনভাবে নির্যাতন করছে এমন অভিযোগ করে তিনি বলেন, নির্যাতন করে ছাত্রদের দাবিয়ে রাখা সম্ভব নয়। আপনারা মনে করছেন, ছাত্রদের উপর পুলিশ ও ছাত্রলীগের গুন্ডাদের দিয়ে হামলা করিয়ে কোটা সংস্কার আন্দোলনসহ সকল আন্দোলন রুখে দিবেন। কিন্তু বাংলার ছাত্রসমাজ অন্যায়ের কাছে মাথানত করবে না। গত মঙ্গলবার যেরকম নির্লজ্জভাবে আমাদের ছাত্রছাত্রীদের ওপর পুলিশ হামলা করেছে আমরা তার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। অতীতে সকল সৈরাচারের পতন এই ছাত্রদের আন্দোলনের মাধ্যমেই হয়েছে। সরকারকে উচিত আইয়ুব-ইয়াহিয়া ও এরশাদের কাছ থেকে শিক্ষা নেওয়া। ছাত্রদের সামনে কোনো স্বৈরাচার টিকে থাকতে পারেনি। আপনারাও খুব বেশীদিন টিকে থাকতে পারবেন না। জেদে-রাগে কোটা বাতিলের ঘোষণা দিয়ে পরে ছাত্রদের ওপর হামলা করিয়েছেন। এখন কোমলমতি শিক্ষার্থীদের ওপর নির্যাতন চালাচ্ছেন। এসব বন্ধ করতে হবে। আমাদের ভাইবোনের ওপর নির্যাতন হলে তো আমরা ঘরে বসে থাকতে পারিনা। শিক্ষার্থীদের ওপর নির্যাতন বন্ধ করে তাদের যৌক্তিক দাবি মেনে না নিলেও রাজপথে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তোলা হবে বলে হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

তিনি বলেন, সরকারের দায়িত্বশীল মন্ত্রী শাহজাহান খান মৃত্যুর খবর পেয়ে হেসেছেন। উনার পরিবারের কারো মৃত্যুর সংবাদ পাওয়ার পরও উনি হাসবেন কিনা এ প্রশ্ন রাখতে চাই। শাহজাহান খান ভারতের সড়ক দুর্ঘটনার সঙ্গে বাংলাদেশের সড়ক দুর্ঘটনার তুলনা দিয়েছেন। অথচ এদেশের সকল সড়ক দুর্ঘটনার জন্য ৫০ শতাংশ দায়ীই হচ্ছেন শাহজাহান খান।

নাগরিক ছাত্র ঐক্যের আহ্বায়ক নাজমুল হাসানের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন- নাগরিক ঐক্যের কেন্দ্রীয় সমন্বয়ক শহীদুল্লাহ কায়সার, কেন্দ্রীয় নেতা মমিনুল ইসলাম, মোফাখখারুল ইসলাম নবাব, ডা. জাহিদুর রহমান, ঐক্যবদ্ধ ছাত্র সমাজের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদউল্লাহ মধু, ছাত্রলীগ (জেএসডি) সমন্বয়ক তৌফিক, নাগরিক ছাত্র ঐক্যের সদস্য সচিব রিয়াজুল ইসলাম রিহান, কেন্দ্রীয় নেতা মুঈদ হাসান তড়িৎ, যুব ঐক্যের আহ্বায়ক শাহীনুল আলম, সাংবাদিক কামরুজ্জামান কাজল প্রমুখ।

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়