শিরোনাম
◈ রসায়নে নোবেল পুরস্কার পেলেন তিন বিজ্ঞানী ◈ বিদ্যুৎ উৎপাদনের নামে দুর্নীতি করে জাতিকে সংকটে ফেলেছে সরকার: মির্জা ফখরুল ◈ বিএনপির রাজনীতি মানেই সাম্প্রদায়িক রাজনীতি: কাদের ◈ দেশে ৫ কোটি ৫৬ লাখ ডোজের বেশি টিকা দেওয়া হয়েছে : স্বাস্থ্য অধিদপ্তর ◈ জাতীয় গ্রিড বিপর্যয়, দেশ পরিচালনায় সরকারের ব্যর্থতার প্রমাণ: জিএম কাদের ◈ রাঙ্গামাটিতে পাহাড় ধসে যোগাযোগ বন্ধ, আটকা পড়েছেন হাজারো পর্যটক ◈ রাশিয়ার চেয়ে আট গুণ ক্ষতির মুখে পড়বে ইউক্রেনের অর্থনীতি: বিশ্ব ব্যাংক ◈ যুক্তরাজ্য-যুক্তরাষ্ট্র সফর নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন বৃহস্পতিবার ◈ খিলগাঁওয়ে বাসা থেকে গৃহবধূর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার ◈ খেরসনের অংশবিশেষ পুনরুদ্ধার করেছে ইউক্রেন (ভিডিও)

প্রকাশিত : ১১ আগস্ট, ২০২২, ০১:৩২ রাত
আপডেট : ১১ আগস্ট, ২০২২, ১১:৩৯ দুপুর

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

অকটেন বিক্রি করে লিটারে লাভ ২৫ টাকা: বিপিসি

বিপিসি চেয়ারম্যান এ বি এম আজাদ

ডেস্ক  রিপোর্ট: দেশে প্রতি লিটার অকটেন বিক্রি করে ২৫ টাকা লাভ করে বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম করপোরেশন (বিপিসি)। যেটা আগে ৮৯ টাকায় বিক্রি হতো। বুধবার (১০ আগস্ট) এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানিয়েছেন বিপিসি চেয়ারম্যান এ বি এম আজাদ।

তবে অকটেনে লাভের মুখ দেখলেও প্রতি লিটার ডিজেলে ৬ টাকা লোকসান হচ্ছে বলে দাবি করেন তিনি।

ডলার-সংকট ও বিশ্ববাজারে মূল্যবৃদ্ধির কারণ দেখিয়ে সম্প্রতি দেশে জ্বালানি তেলের দাম লিটারপ্রতি ৩৪ থেকে ৪৬ টাকা বাড়িয়েছে সরকার। এখন ভোক্তা পর্যায়ে ডিজেল ও কেরোসিনের খুচরা মূল্য প্রতি লিটার ১১৪ টাকা, পেট্রোল ১৩০ ও অকটেন ১৩৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। নতুন দামে ডিজেল ও কেরোসিনের দাম ৮০ টাকা থেকে ৪২ দশমিক ৫ শতাংশ বাড়ানো হয়েছে। একইভাবে পেট্রোলের দাম ৮৬ টাকা থেকে ৫১ দশমিক ১৬ এবং অকটেনের দাম ৮৯ টাকা থেকে ৫১ দশমিক ৬৮ শতাংশ বাড়ানো হয়েছে।
 
দেশে জ্বালানি তেলের মজুতের হিসাব দিয়ে বিপিসি প্রধান বলেন, বর্তমানে আমাদের ৩০ দিনের ডিজেল, ১৮ থেকে ১৯ দিনের অকটেন, ১৮ দিনের পেট্রোল ও ৩২ দিনের জেট ফুয়েল মজুত রয়েছে।

গত বছরে ৪৭ হাজার কোটি টাকা বিপিসি লাভ করলেও কেন কয়েক মাসের লোকসানের মুখে দাম বাড়ানো হলো এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘১৯৯৯-২০০০ অর্থবছর থেকে ২০১৩-১৪ অর্থবছর পর্যন্ত জ্বালানি খাতে ক্রমাগত লোকসান গুনতে হয়, যার পরিমাণ প্রায় ৫৩ হাজার ৫ কোটি টাকার মতো। তার মধ্যে সরকার ভর্তুকি বাবদ ৪৪ হাজার ৮৭৭ কোটি টাকার মতো বিপিসিকে দিয়েছিল। পরে আরও প্রায় ৮ হাজার ১২৭ কোটি টাকা ঘাটতি ছিল যা আমরা পরে মুনাফার সঙ্গে সমন্বয় করি।

বিপিসি চেয়ারম্যান দাবি করেন, গত ফেব্রুয়ারি থেকে জুলাই পর্যন্ত বিপিসির প্রকৃত লোকসান ৮ হাজার ১৪ কোটি টাকা।

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়