শিরোনাম

প্রকাশিত : ৩০ নভেম্বর, ২০২২, ০৭:৫৪ সকাল
আপডেট : ৩০ নভেম্বর, ২০২২, ০৭:৫৪ সকাল

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

কর্মক্ষেত্রে প্রেমের প্রস্তাব, এড়াতে কী করতে পারেন

ডেস্ক রিপোর্ট : আপনাক কখন কার মনে ধরে বলা মুশকিল। কারো পক্ষেই বলা সম্ভব নয়। সবার প্রেমের প্রস্তাবে আপনাকে রাজি হতে হবে এমনটাও নয়। ফিরিয়ে দেওয়ার অধিকারও আপনার আছে। তবে তার মানে এই নয়, পারস্পরিক আলাপচারিতার জায়গা থাকবে না বা যোগাযোগ পুরোপুরি বন্ধ হয়ে যাবে। বিশেষ করে সেই প্রস্তাব যদি আসে এমন কারো কাছ থেকে, যার সঙ্গে কর্মক্ষেত্রে রোজ দেখা হয়। সে ক্ষেত্রে অস্বস্তি আরো বেশি হতে পারে। সহকর্মী বা কাছের বন্ধু এ ধরনের প্রস্তাব দিলে কী করতে পারেন চলুন জেনে নিই। 

** প্রেমে পড়ার লিখিত নিয়ম নেই। প্রেমের প্রস্তাব মানেই তা নিয়ে কথা বলা যাবে না এটা ভাবা যাবে না। অনেক সময় দেখা যায়, কেউ দীর্ঘদিন পর কোনো মানুষের প্রতি ভালোবাসা অনুভব করেন। সে ক্ষেত্রে মুখের ওপর না বলাটা সহজ হয় না। তবে দীর্ঘদিন ধরে পরিচিত, তাই ঘুরিয়ে-পেঁচিয়ে না বলার থেকে সরাসরি না বলাই ভালো।

** অনলাইনে আলাপ ও আপনার ব্যক্তিজীবনের সঙ্গে সম্পর্ক নেই এমন পরিচিত কেউ যদি প্রেমের প্রস্তাব দেয়, তবে বলতে পারেন আপনি অন্য কারো সঙ্গে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ।  

** বহু মানুষই কোনো ধরনের সম্পর্কে যেতে চায় না। তাহলে সরাসরি বলে দিন আপনি একা থাকতে চান।

** অনেক ক্ষেত্রে দীর্ঘদিনের বন্ধুও প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে বসেন। তখন একটা কঠিন অবস্থা দাঁড়ায়। এ ধরনের ঘটনায় সরাসরি প্রত্যাখ্যান করতে অসুবিধা হলে ছোট একটি সুন্দর চিঠিতে সব বলতে পারেন।  

** কর্মক্ষেত্রে প্রেমের প্রস্তাব পেলে কাজের ব্যস্ততা দেখাতে পারেন। বেশি কথা না বলা এড়িয়ে যাওয়ার অব্যর্থ একটি উপায়। মনে রাখবেন, এতে অপরাধবোধে ভোগার কোনো কারণ নেই।  

যেকোনো সম্পর্কের মূল হলো পারস্পরিক সম্মতি ও ইচ্ছা। তাই অন্যকে তুষ্ট করার জন্য নিজের সঙ্গে অন্যের ক্ষতি করবেন না।  

এএঈচ

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়