প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

যে হ্রদ থেকে কেউ আর ফিরে আসে না

অনলাইন ডেস্ক : পৃথিবীতে এমন কিছু ভয়ঙ্কর স্থান রয়েছে, যেখানে গেলে মানুষসহ সব প্রাণীই মারা যায়। তেমনি একটি ভয়ঙ্কর স্থান হলো খুনি হ্রদ বা কিলার লেক। এটি ক্যামেরুনে এ অবস্থিত।

এর আসল নাম নয়োজ হলেও স্থানীয় ভাবে এটি খুনি হ্রদ নামেই পরিচিত। এটি একটি মৃত আগ্নেয়গিড়ির জ্বালামুখে অবস্থিত। এটি লাভায় পরিপূর্ণ থাকলেও এর উপরে রয়েছে গভীর পানি আর এর মধ্য দিয়ে আস্তে আস্তে নির্গত হচ্ছে কার্বনডাই-অক্সাইড।

পর্বতের এই অংশটি ওক পর্বতমালার অন্তর্গত যা ক্যামেরুন এর উত্তর পশ্চিম অঞ্চলে অবস্থিত।এটার নাম মৃত্যু হ্রদ কারন ১৯৮৬ সালের দিকে এর থেকে কার্বন ডাইঅক্সাইডের এক সুবিশাল বুদ্বুদ বের হয় যা সালফার এবং হাইড্রোজেন সঙ্গে মিশে বায়ুমন্ডলে মিশে যায় ।এর আসল নাম নয়োজ

সর্বমোট এক দশমিক ছয় টন পরিমান এই গ্যাস চারিদিকে ছড়িয়ে যায়। এর বিস্তারের পরিমান ছিল কেন্দ্র থেকে প্রায় ২৩ কিলোমিটার। আর এই বিষাক্ত গ্যাসে আক্রান্ত হয়ে দুই ঘন্টায় প্রায় এক হাজার ৭০০ জন মানুষ ও তিন হাজার ৫০০ গবাদী পশু মারা যায়।

যারা বেচে ছিল তাদেরকেও দীর্ঘমেয়াদি কষ্টকর পার্শপ্রতিক্রিযা যেমন ক্ষত, টিস্যু পোড়া এবং শ্বাসযন্ত্রের অসুস্থতা প্রভৃতিতে ভুগতে হয়েছিল। এখনও এই হ্রদের পাশে গেলে মৃত্যুই অবধারিত। যদি দূর থেকে দেখা যায়, তাহলে অনেক ভয়ঙ্কর রোগ হতে পারে।তিন হাজার ৫০০ গবাদী পশু মারা যায়

সর্বাধিক পঠিত