প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সৈয়দ আবিদ হোসেন সামি: পরাজয় বিষয় নয়, হারের অ্যাপ্রোচ এবং ওভারঅল প্রসেসে প্রবলেম

সৈয়দ আবিদ হোসেন সামি
আমি কখনো আমার কোনো অ্যানালাইসিস রিপোর্ট বা ভিডিওতে প্লেয়ারদের কট‚ক্তি করি না, টেকনিক্যাল সমালোচনা করি। বাংলাদেশে গণমাধ্যমে মনে হয় একমাত্র আমিই ওপেনলি ক্রিকেটারদের ডিফেন্ড করে যাই,as I also play a bit of cricket and I know the pressure. বাট, আপনি প্রতিদিন স্কুপ/রিভার্স সুইপ খেলে আউট হবেন, প্রতিপক্ষের দুর্বলতা/সবলতা সম্পর্কে অ্যানালাইসিস না করে আপনি মাঠে নামবেন,then what are you people doing over here.

ফ্যাক্ট-১: নিকোলাস পুরান ওয়াইড আউটসাইড অফস্ট্যাম্পে দুর্বল, স্কোরিং রেঞ্জ কম। মোস্তাফিজ আইপিএলে পাঞ্জাবের সঙ্গে ম্যাচে এই জায়গায় ছক কষেছিলো, (রাজস্থানের অ্যানালিস্ট কষিয়েছিলো), আর আজ পুরানকে আপনারা উইকেটে তার স্কোরিং জোনে বল দিচ্ছেন। একমাত্র শরিফুল ওয়াইড আউটসাইড অফস্ট্যাম্পে বল করেছে পুরানকে। ফ্যাক্ট-২: যে রেগুলেশন ক্যাচগুলো ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেটে আপনারা ছাড়ছেন (এখন পর্যন্ত ১২টা), স্যরি টু সে, এগুলোার ৯৫ শতাংশ ক্যাচ প্রথম বিভাগ তো পরের ব্যাপার, তৃতীয় বিভাগের ছেলেপেলে ধরবে। (কথাটা আমার সঙ্গে যায় না জানি)। ফ্যাক্ট-৩: গ্রোইন ইনজুরিতে পড়া একজনকে ওপেন করাচ্ছেন। ফ্যাক্ট-৪: আপনি প্রথম ম্যাচে স্কুপ খেলতে গিয়ে বোল্ড হলেন। শ্রীলঙ্কার সঙ্গে ৪০-এর পর ৪টা স্কুপ খেললেন যার ৩টাতেই রান পেলেন না, ইংল্যান্ডের সঙ্গে ২টা রিভার্স সুইপ খেললেন, যার একটাতে লাইফ আরেকটাতে উইকেট। (ইংল্যান্ড আপনার ব্যাপারে অ্যানালাইসিস করে আপনাকে ওইদিন সব উইকেটে বল দিয়ে আপনার সিঙ্গেল আটকিয়েছে যাতে আপনি স্কুপ বা রিভার্স খেলতে যান, আপনি তাই করেছেন, অথচ গ সুইপে আপনার স্ট্রাইক রেট ৩০০)। উইন্ডিজের সঙ্গে ক্রুসাল মোমেন্টে স্কুপ খেলেন, যেখানে আপনার সোজা খেলার অ্যাবিলিটি সবার থেকে বেটার।

ফ্যাক্ট-৫: আপনার ভেন্যু অ্যাসেসমেন্ট অ্যানালাইসিসই তো নেই। এর আগের ম্যাচে আবুধাবির অ্যাসেসমেন্ট অনুযায়ী ইংল্যান্ডের পেসাররা ৫৮ শতাংশ ব্যাক অফ লেন্থ বল করেছে, ১৮ শতাংশ ফুল লেন্থ বল করেছে। আপনি করেছেন তার ঠিক উল্টো, ১৮ শতাংশ ব্যাক অফ লেন্থ বল, ৪৪ শতাংশ ফুল লেন্থ বল( প্রতিটি বাউন্ডারি এই ধরনের বলে)। ফ্যাক্ট-৬: নিউজিল্যান্ডের সঙ্গে পঞ্চম ও তৃতীয় টি-টোয়েন্টিতে নাঈমের ফুটওয়ার্ক প্রবলেম ধরতে পেরে অফ স্ট্যাম্পের বাইরে ট্র্যাপ করে আউট করেছে কিউইরা, এমনকি ওমানও সেই ট্র্যাপ করেছে বেশ কয়েকবার, আউট হননি নাঈম। উইন্ডিজও সেম ট্র্যাপ। এগুলো নিয়ে কি কাজ হয় না? আপনার অপনেন্ট অ্যানালাইসিস, ভেন্যু অ্যাসেসমেন্ট, প্লেয়ার অ্যানালাইসিস, নিজের ল্যাকিং অ্যানালাইসিস কিচ্ছু নেই। অন্যদিকে অপনেন্টের কাছে আপনি খোলা বই। There is something wrong out there. এরপরও আপনি যদি অস্ট্রেলিয়া-দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারিয়েও দেন, তারপরও কথাটা একই থাকবে। হারা বিষয় নয়, হারের অ্যাপ্রোচ, ওভারঅল প্রসেসে প্রবলেম। Syed Abid Hussain Sami-র ফেসবুক পেজে লেখাটি পড়ুন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত