প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] আওয়ামী লীগ নেতাকে হত্যার প্রতিবাদে লক্ষ্মীপুরে প্রতিবাদ সভা

জহিরুল ইসলাম: [২] লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার বশিকপুর ইউনিয়নের ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতা হারুনুর রশিদ হারুন হত্যাকান্ডের প্রতিবাদে ও হত্যাকারীদের গ্রেফতারের দাবিতে আন্দোলন অব্যাহত আছে। শনিবার বিকেলে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ বশিকপুর ইউনিয়ন পরিষদে প্রতিবাদ সভার আয়োজন করে। কর্মসূচি থেকে অবিলম্বে হারুনুর রশিদ হারুন হত্যার সাথে জড়িত খুনিদের গ্রেফতার ও এর পেছনের লোকদের নাম প্রকাশের দাবি জানানো হয়। অন্যথায় বশিকপুর অচল করে দেওয়া হবে বলে হুঁশিয়ার করা হয়।

[৩] প্রতিবাদ সভায় চন্দ্রগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের আহবায়ক আবুল কাশেম চৌধুরী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যখন দেশের উন্নয়ন করে যাচ্ছেন তখন বিএনপি-জামায়াতের নেতা-কর্মীরা দেশে মানুষ হত্যা ও বিভিন্ন ষড়যন্ত্র করে যাচ্ছে। বিএনপি জামায়াতের নেতা-কর্মীরা দেশে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি তৈরী করতে আওয়ামী লীগ নেতা হারুনুর রশিদ হারুনকে কুপিয়ে হত্যা করেছে। প্রতিবাদ সভা শেষে আওয়ামী লীগ নেতা হারুনুর রশিদ হারুনের আত্মার মাগফিরাত কামনা করে বিশেষ দোয়া করা হয় ও পোদ্দার বাজারে বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়।

[৪] প্রতিবাদ সভায় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আমির হোসেন এর সভাপতিত্বে আরো বক্তব্য রাখেন, বশিকপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবুল কাশেম জিহাদী, বশিকপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক প্রফেসর জাহাঙ্গীর আলম, বাঙ্গাখাঁ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক ফিরোজ আহমেদ, বশিকপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও ইউপি সদস্য রুহুল আমিন প্রমুখ।

[৫] পুলিশ ও নিহতের স্বজনরা জানান, গত ৪ আগস্ট রাত ৮টার দিকে চন্দ্রগঞ্জ উপজেলার বশিকপুর ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশিদ হারুনের উপর হামলা করে দুর্বৃত্তরা। তাদের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে তার দুই হাতের কব্জি, পা ও মাথায় গুরুতর রক্তাক্ত জখম হয়। একই দিন রাত ১টার দিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে কুমিল্লা বিশ্বরোড এলাকায় হারুনের মৃত্যু হয়। হত্যারকান্ডের পরের দিন ৫ আগস্ট বিকেলে অজ্ঞাত ৬-৭ জনকে আসামি করে চন্দ্রগঞ্জ থানায় মামলা করেন নিহতের ছেলে আল আমিন।

সর্বাধিক পঠিত