প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

চুলের যত্নে আদার ব্যবহার

স্বাস্থ্য ডেস্ক: দীর্ঘদিন ধরে রান্নার অন্যতম উপাদান হিসেবে ব্যবহার হয়ে আসছে আদা। তবে খুব বেশি দিন হয়নি চুলের যত্নে ব্যবহার করা হচ্ছে আদা। অরগ্যানিক বিউটি প্রোডাক্টসের চাহিদার কারণে অনেক ব্র্যান্ড আদা-মিশ্রিত শ্যাম্পু ও কন্ডিশনার তৈরি করছে, যা চুলের স্বাস্থ্যে বেশ কার্যকর। এনটিভি

জন পল মিশেলের টেকনিক্যাল ট্রেইনার চাঁদনী কামদারের ভাষ্যে ভারতের বিখ্যাত ফ্যাশনবিষয়ক সাময়িকী ফেমিনার এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, চুলের যত্নে আদা অত্যন্ত উপকারী। আর আদা চুলের ঠিক কোন কোন সমস্যা দূর করে, তা-ও জানানো হয়েছে।

চুলের বৃদ্ধিতে: স্বাস্থ্যকর চুলের যাত্রা শুরু হয় গভীর থেকে। চুলের বৃদ্ধির জন্য জরুরি মাথার ত্বকে রক্ত সঞ্চালনের উন্নতি। কামদার জানান, আদায় থাকা অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট জিঞ্জারল স্ক্যাল্পকে উদ্দীপ্ত করে এবং ফ্রি রেডিক্যালের সঙ্গে লড়াই করে চুলের কোষ ড্যামেজ হওয়া থেকে রক্ষা করে। এতে চুল পাতলা হয়ে যাওয়া বা চুল পড়া কমে।

চুলে জট বাঁধা থেকে সুরক্ষা: দূষণ, রোদজনিত সমস্যা ও জীবনধারণের কারণে চুল উজ্জ্বলতা হারিয়েছে? কামদারের মতে, মিনারেলস, নিউট্রিয়েন্টস ও এসেনসিয়াল অয়েল সমৃদ্ধ আদা চুলে প্রাকৃতিক কন্ডিশনারের কাজ করে। আর এ কারণে রুক্ষতা ও জট হওয়া থেকে মুক্তি দেয় আদা। আদায় থাকা কন্ডিশনিং উপাদান চুলকে ময়েশ্চারাইজ ও মসৃণ করে।

খুশকি থেকে সুরক্ষা: আদা খুশকি থেকে সুরক্ষা দেয়। খুশকির কারণে মাথায় চুলকায়। আর খুশকিই চুল পড়া ও চুলের স্বাস্থ্যের জন্য হুমকি। আদায় থাকা অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি ও অ্যান্টিসেপটিক উপাদান মাথার ত্বক পরিচ্ছন্ন ও স্বাস্থ্যকর রাখতে সহায়তা করে বলে মত কামদারের।

ত্বকের সংক্রমণ থেকে সুরক্ষা: সংবেদনশীল স্ক্যাল্পের জন্য লড়ছেন? স্ক্যাল্প সেনসিভিটি ও ইনফ্ল্যামেশন থেকে সুরক্ষায় কাজ করে আদা। এতে থাকা বিটা-সিটোস্টেরল স্ক্যাল্প শুষ্ক হওয়া থেকে রক্ষা করে এবং ত্বকের সংক্রমণ থেকে সুরক্ষা দেয়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত