প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত খুনিদের খেতাব এখনও ‘বীর বিক্রম’ ও ‘বীর উত্তম’!

ডেস্ক রিপোর্ট : বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত দুই খুনি ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত হলেও তাদের নামের খেতাবে রয়ে গেছে বীরের মর্যাদা। মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে ও উইকিপিডিয়ায় ওই দুই ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি এখনও ‘বীর বিক্রম’ ও ‘বীর উত্তম’।

দেশের সর্বোচ্চ আদালতের রায়ে ওই খুনিদের ফাঁসির আদেশ এলেও রাষ্ট্রীয়ভাবে তাদের মর্যাদা বা খেতাব এখনো বাতিল করা হয়নি।

এদের মধ্যে পলাতক ছয় খুনির অন্যতম ক্যাপ্টেন নূর চৌধুরীর নামের সঙ্গে ‘বীর বিক্রম’ ও মেজর শরিফুল হক ডালিমের নামের সঙ্গে ‘বীর উত্তম’ উপাধি রয়েছে। মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে এই তালিকা সর্বশেষ হালনাগাদ করা হয়েছে ২০১৫ সালের ১১ আগস্ট।

দুঃখজনক হলেও সত্য, নদেশের সর্বোচ্চ আদালত ইতিহাসের জঘন্যতম খুনিদের ফাঁসির আদেশ দিলেও তাদের বীরের খেতাব এখনো বাতিল করা হয়নি। অথচ মানবাধিকার লংঘনের দায়ে অং সান সুচি’র একাধিক পদক প্রত্যাহার করে নেয়া হয়েছে।

উল্লেখিত দুই খুনির খেতাব বাতিলের জন্য গত বছর এই দিনে সরকারকে অনুরোধ জানিয়েছেন কানাডায় অভিবাসী ১২ জন লেখক, সাংবাদিক, শিক্ষক, শিল্পী, আইনজীবী এবং সাংস্কৃতিককর্মী। তারা হলেন লুৎফর রহমান রিটন, ড. মোজাম্মেল খান, সাইফুল্লাহ মাহমুদ দুলাল, সুমন রহমান, ব্যারিস্টার কামরুল হাফিজ, দিনু বিল্লাহ, রাকীব হাসান, নাহার মনিকা, আহমেদ হোসেন, মনিস রফিক, জাকির এবং জর্জ রয়। বিশেষজ্ঞরা মনে করেন, অনতিবিলম্বে খুনিদের খেতাব বাতিল করা জরুরি।

ইত্তেফাক

সর্বাধিক পঠিত