প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] দলের বেহাল অবস্থার মধ্যে বান্ধবীর সঙ্গে টিকটকে মেতে ওঠায় চুক্তি থেকে বাদ পড়লেন ইতালিয়ান ফুটবলার

স্পোর্টস ডেস্ক : [২] দলের পরাজয়ে মোটেও মর্মাহত হননি তিনি। মনক্ষুন্ন না হয়ে বরং পরাজয়ের একটু পরেই বান্ধবীর সাথে মেতেছেন টিকটক ভিডিও বানানোর কাজে। আর তাতে ক্লাবের রোষানলে পড়ে মৌসুম শেষ হওয়ার আগেই ইতালিয়ান ক্লাব ‘রোমার’ ফুটবলার মিরকো আনতনুচ্চি পর্তুগাল ক্লাব ভিতোরিয়া সেতুবালের সঙ্গে চুক্তি থেকে বাদ পড়েছেন। চলতি বছরের শুরুতে মিরকোকে ধারে ভিতোরিয়ায় পাঠিয়েছিল রোমা। কিন্তু পুরো মৌসুম সেখানে শেষও করতে পারলেন না মিরকো। এর আগেই তার সঙ্গে চুক্তি বাতিল করেছে ভিতোরিয়া, ফেরত পাঠিয়েছে ইতালিয়ান ক্লাব রোমায়। -ঢাকাটাইমস

[৩] গত শনিবারের পর্তুগিজ লিগের ম্যাচে ভোয়াবিস্তার কাছে ৩-১ গোলে হেরেছিল ভিতোরিয়া। ক্লাবের সবাই যখন সেই পরাজয়ের কারণ খুঁজতে ব্যস্ত, তখন মিরকো সময় কাটাচ্ছেন বান্ধবীর সঙ্গে টিকটক বানাতে। পরে সেই টিকটক ভিডিও আপলোড করতেই পড়েছেন ক্লাবের রোষানলে।

[৪] ভিতোরিয়া কোচ হুলিও ভেলাজকুয়েজ বলেন, মিরকো আনতনুচ্চি এখন থেকে আর ভিতোরিয়ার খেলোয়াড় নয়। তার মূল ক্লাব রোমাকেও জানিয়ে দেওয়া হয়েছে যে আমাদের মধ্যকার চুক্তি শেষ। আমরা এমন কোন খেলোয়াড়ের ওপর আস্থা রাখি না যে আমাদের সমর্থক এবং ক্লাবের ইতিহাসের প্রতি সম্মান দেখায় না। এই ক্লাবের জার্সি পরা মানে পুরো ২৪ ঘণ্টা ক্লাবের প্রতি দায়বদ্ধ থাকে।

[৫] মিরকোকে বাদ দেওয়ার কারণ ব্যাখ্যা করে তিনি আরও যোগ করেন, এখানে জটিলতার কিছু নেই। পরিস্থিতিটা খুবই সহজ। ক্লাব, ম্যানেজম্যান্ট, টেকনিক্যাল টিম এবং অন্যান্য স্টাফরা একমত হয়েছে যে, একজন ধারে আসা খেলোয়াড়ের কাছ থেকে আমরা যেমনটা চাই, ঠিক তেমনটা পাইনি। আমাদের সমর্থকরাও এমনটা প্রাপ্য নয়।

[৬] ভিতোরিয়ার কাছ থেকে তিরস্কৃত হয়ে ক্ষমা প্রার্থনা করেছেন মিরকো। ইনস্টাগ্রামে তিনি বলেছেন, আমি নিজের ভুল বুঝতে পারছি। ক্লাব, সমর্থক, ম্যানেজার এবং আমার সতীর্থ যারা দুঃখ পেয়েছেন, তাদের সবার কাছে ক্ষমা চাচ্ছি। – ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস

সর্বাধিক পঠিত