প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] ১২ নভেম্বর ‘ধিক্কার মিছিল’ করবে বাংলাদেশ হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ

মাজহারুল ইসলাম: [২] ওইদিন বিকেল ৪টার দিকে রাজধানীর শাহবাগ ও চট্টগ্রাম প্রেসক্লাব চত্বরে এ কর্মসূচি পালিত হবে। শনিবার জাতীয় প্রেসক্লাবের জহুর হোসেন চৌধুরী হলে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ কর্মসূচির ডাক দেন বাংলাদেশ হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট রাণা দাশগুপ্ত।

[৩] রাণা দাশগুপ্ত বলেন, বিগত দিনে দেশের কোনও রাজনৈতিক দল স্বীকার করতে চাননি যে ধর্মীয় ও জাতিগত সংখ্যালঘুদের ওপর নির্বিচারে সাম্প্রদায়িক হামলা হচ্ছে। এবার দেশের প্রধান রাজনৈতিক দলগুলো প্রকারান্তরে স্বীকার করে নিয়েছে সাম্প্রদায়িক হামলা অতীতেও ছিল, বর্তমানেও আছে।

[৪] সাম্প্রতিক সাম্প্রদায়িক সহিংসতার ঘটনায় মামলাগুলোর নিরপেক্ষ ও বস্তুনিষ্ঠ তদন্ত চাই। দলমত নির্বিশেষে যারা-ই ঘটনার সঙ্গে জড়িত তাদের চিহ্নিত করে অনতিবিলম্বে গ্রেপ্তার করে বিশেষ ক্ষমতা আইন ও দ্রুত বিচার আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই। হাজার হাজার মানুষ গ্রেপ্তার করলেই সুবিচার আসে না। নিরপরাধ কেউ যেন গ্রেপ্তার ও হয়রানির শিকার না হয়, এজন্য আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর প্রতি আহ্বান জানাই।

[৫] রাণা দাশগুপ্ত বলেন, আইনমন্ত্রীর এক সেমিনারে বলেছিলেন, সংখ্যালঘু সুরক্ষা আইন ও জাতীয় সংখ্যালঘু কমিশন আইন প্রণয়ন করা হচ্ছে এবং দ্রুত তা পার্লামেন্টে উত্থাপন করা হবে। কিন্তু চার দিন যেতে না যেতেই তিনি বললেন, সংখ্যালঘু সুরক্ষা আইন নয়, সাক্ষী সুরক্ষা আইনের কথা বলেছেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত