প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] বাঁশখালীতে পারিবারিক বিরোধকে কেন্দ্র করে হামলা ২ জন নিহতের ঘটনায় হত্যা মামলা দায়ের, আটক-৪

কল্যাণ বড়ুয়া: [২] চট্টগ্রামের বাঁশখালী পৌরসভার দক্ষিণ জলদী মনছুরিয়া এলাকায় পারিবারিক বিরোধকে কেন্দ্র করে হামলা ২ জন নিহত হওয়ার ঘটনায় ১০ জনকে আসামি করে হত্যা মামলা দায়ের করেছে নিহত আব্দুল খালেকের (৩০) মা ও নিহত সুলতান মাহমুদ টিপুর (২৫) দাদী মমতাজ বেগম। পুলিশ এ ঘটনায় এজাহার ভুক্ত ৪ আসামিকে আটক করেছে।

[৩] বুধবার (২০ অক্টোবর) দুপুরে সংঘটিত এ ঘটনায় নিহত সুলতান মাহমুদ টিপুর বাবা মো. কামাল উদ্দিনসহ আরো দুজন চমেক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। অপরদিকে ঘটনায় জড়িত নয় অজুহাতে ফেইসবুকে লাইফে এসে বিষপান করা চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগের সহ-সম্পাদক মো. রাসেল বর্তমানে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

[৪] স্থানীয় ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায় বুধবার দুপুরের বাঁশখালী পৌরসভা দক্ষিণ জলদী মনছুরিয়া বাজারের পাশে বাড়ির পানি নিষ্কাশন করার জন্য পাইপ লাইন ঠিক করতে গেলে প্রতিপক্ষের হামলার শিকার হয় আব্দুল খালেক (৩৪)। তাকে গুরুতর জখম করলে সাহায়্যে এগিয়ে আসা সুলতান মাহমুদ টিপু ও তার পিতা মো. কামাল উদ্দিন।

[৫] আহতদের বাঁশখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স আনা হলে আব্দুল খালেক (৩০) এর মৃত্যু নিশ্চিত করে বাঁশখালী হাসপাতালের জরুরী বিভাগে কর্তব্যরত চিকিৎসক। আশংকাজনক অবস্থায় সুলতান মাহমুদ টিপু (২৫), তার পিতা মো. কামাল উদ্দিন (৫৫) আরো দুইজনকে চমেক হাসপাতালে প্রেরন করা হলে বুধবার রাতে হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করে সুলতান মাহমুদ টিপু (২৫)। নিহত আব্দুল খালেক ও সুলতান মাহমুদ টিপু সর্ম্পকে চাচা ভাতিজা।

এ ঘটনায় নিহত আব্দুল খালেকের (৩০) মা ও নিহত সুলতান মাহমুদ টিপুর(২৫) দাদী মমতাজ বেগম বুধবার রাতে ১০ জনকে জ্ঞাত এবং ৫/ কে অজ্ঞাত আসামি করে হত্যা মামলা দায়ের করে। পুলিশ ঘটনার পর পর ওই রাতে কাছিম আলীর দুই পুত্র মো. বাহাদুর (৩৩) ও মঞ্জুর আলম (৪০), মৃত নাগু মিয়ার পুত্র জাকের হোছন (৪৮) এবং মৃত শফিকুর রহমানের পুত্র মো. ছিদ্দিক (৫২) কে আটক করেছে।

জানা যায় ঘটনায় নিহত আব্দুল খালেকে একটি ঔষুধ কোম্পানিতে চাকরি করত, তার দুই ছেলে মেয়ে রয়েছে অপরদিকে নিহত সুলতান মাহমুদ টিপুর এক পুত্র সন্তান রয়েছে। ঘটনার পর চট্টগ্রামের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জাহাঙ্গীর আলম সকহারি পুলিশ সুপার (সার্কেল) মো. হুমায়ুন কবির সহ পুলিশের উধর্তন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।

বাঁশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কামাল উদ্দীন বলেন, বুধবার দুপুরে পারিবারিক বিরোধের কারণে দক্ষিণ জলদী মনছুরিয়া এলাকায় সংঘর্ষের ঘটনায় আব্দুল খালেক নামে একজনের ঘটনাস্থলে মৃত্যু হয়। সুলতান মাহমুদ টিপু নামে অন্য একজনকে গুরুতর আহত অবস্থায় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানে বুধবার রাতে তার মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় নিহত আব্দুল খালেকের (৩০) মা ও নিহত সুলতান মাহমুদ টিপুর(২৫) দাদী মমতাজ বেগম বাদী হয়ে ১০ জনকে জ্ঞাত এবং ৫/ কে অজ্ঞাত আসামি করে হত্যা মামলা দায়ের করে।

তার মধ্যে ৪ আসামিকে আটক করা হয়েছে বাকিদের আটকের প্রচেষ্টা চলছে। এদিকে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় মনছুরিয়া বাজার সংলগ্ন মাঠে নামাজে জানাযা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হবে বলে পারিবারিক সুত্রে জানা যায় ।

কল্যাণ বড়–য়া
বাঁশখালী (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি
তারিখ ২১.১০.২০২১
০১৭১২৭৭০৫৪১

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত