প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] ঢালাও ভাবে সব খুলে দেয়া বিপদজনক: ডা. মোহাম্মদ সহিদুল্লাহ

শিমুল মাহমুদ: [২] দেশে করোনা প্রকোপে মধ্যে ঢালাও ভাবে সব খুলে দেয়া বিপদজনক। দ্রুতই পর্যটন অঞ্চল, ধর্মীয়, রাজনীতিক, সামাজিক অনুষ্ঠান ও হোটেল রেস্টুরেন্টে বসে খাবার গ্রহণ বন্ধ করার পরামর্শ দিয়েছেন কোভিড-১৯ মোকাবিলায় গঠিত জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটি।

[৩] শনিবার (১৪ আগস্ট) সকালে সাংবাদিকদের কমিটির সভাপতি অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ সহিদুল্লাহ বলেন, পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ না করে সব কিছু খুলে দেয়ায় বিপর্যয় হতে পারে। আমরা পরামর্শ দিয়েছি পর্যটন কেন্দ্র যেন এখনি খুলে দেয়া না হয়। ধর্মীয় কিংবা সামজিক ও রাজনীতিক সভা-সমাবেশ বন্ধ রাখা দরকার। হোটেল রেস্টুরেন্টে বসে খাওয়ার ব্যবস্থা বন্ধ রাখতে হবে।

[৪] স্বাস্থ্যবিধি মেনে মেডিকেল শিক্ষার্থীদের ক্লাস শুরুর পরামর্শ বিষয় নিয়ে তিনি বলেন, দেশে করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) সংক্রমণ পরিস্থিতিতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা সাপেক্ষে প্রাথমিকভাবে এমবিবিএস ও বিডিএস কোর্সের ২য় বর্ষ ও পঞ্চম বর্ষ বা শেষ বর্ষের ক্লাস শুরু করার পক্ষে মতো প্রদান করেছে কোভিড-১৯ মোকাবিলায় গঠিত জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটি।

[৫] বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, বাজারে বিভিন্ন মানের মাস্ক পাওয়া যায়। তিন লেয়ারের সঠিক মাস্ক উৎপাদন ও বিক্রি নিশ্চিত করার জন্য ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরের পদক্ষেপ নেওয়া প্রয়োজন।

[৬] ভ্যাকসিন কার্যক্রম নিয়ে জনমনে বিভ্রান্তি দূর করার সুপারিশ প্রসঙ্গে জানানো হয়, দেশে করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে ভ্যাকসিন প্রয়োগ কার্যক্রমে বিভিন্ন মহল থেকে বক্তব্য দেয়ায় জনমনে কিছুটা বিভ্রান্তির সৃষ্ঠি হয়েছে বলে মনে করছে কারিগরি পরামর্শক কমিটি। এই বিভ্রান্তি দূর করতে ভ্যাকসিন কার্যক্রমের সঙ্গে সংশ্লিষ্টদের সরাসরি গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলার সুপারিশ করেছে কমিটির সদস্যরা।

[৭] শুক্রবার রাতে পরামর্শক কমিটির সভাপতি অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ সহিদুল্লার সই করা বিজ্ঞপ্তিতে সরকারের কাছে সুপারিশ করার বিষয়টি জানানো হয়। এর আগে গত বৃহস্পতিবার (১২ আগস্ট) কমিটির ৪৪তম অনলাইন সভায় এই সুপারিশ গৃহীত হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন অধ্যাপক মোহাম্মদ সহিদুল্লাহ।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত