প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] গাইবান্ধায় অপহৃত স্কুলছাত্রী তিনদিন পর পলাশবাড়ী থেকে উদ্ধার, আটক ১

রফিকুল ইসলাম: [২] বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদ সম্মেলনের খবর প্রকাশের পর গাইবান্ধার অপহৃত স্কুল ছাত্রী উম্মে হাবিবা সিয়ামনিকে (১৬) তিনদিন পর পলাশবাড়ী পৌরসভার জামালপুর এলাকার একটি বাড়ি থেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ।

[৩] এসময় বাবলা মিয়া নামে এক যুবককে আটক করা হয়। এ ঘটনায় সোমবার অপহৃতাকে আদালতে হাজির করা হয় এবং তার জবাববন্দি গ্রহণ করা হয়।

[৪] প্রসঙ্গত উল্লেখ্য যে, স্কুল ছাত্রী সিয়ামনিকে অপহরণ করার পর গাইবান্ধা সদর থানায় অপহৃতার ভগ্নিপতি ১৫ এপ্রিল রাতে মো. আল আমিন একটি জিডি (নং ৭৯৮) করে। কিন্তু এরপর তিনদিনেও অপহৃত সিয়ামনিকে পুলিশ উদ্ধার করতে সক্ষম না হলেও গত ১৭ এপ্রিল গাইবান্ধা প্রেসক্লাবে তার ভগ্নিপতি ও পরিবার সংবাদ সম্মেলন করে।

[৫] এ খবর বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত হলে নড়েচড়ে বসে পুলিশ। পরবর্তীতে সদর থানায় একটি নিয়মিত মামলা রেকর্ড করা হয়। এরপর ১৮ এপ্রিল রোববার রাতে থানার ওসি মাহফুজার রহমানের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে পলাশবাড়ী পৌর এলাকায় অপহরণকারী মেহেদী হাসান সিয়ামের চাচার বাড়ি ‘তন্ময় ভিলা’ থেকে অপহৃতাকে উদ্ধার ও ওই যুবক বাবলাকে গ্রেফতার করে।

[৬] উল্লেখ্য, গাইবান্ধা শহরের ডেভিড কোম্পানীপাড়ার শাহীন মিয়ার অপ্রাপ্ত বয়স্ক স্কুল পড়ুয়া মেয়ে উম্মে হাবিবা সিয়ামনি ভগ্নিপতি শহরের ফকিরপাড়ার মো. আল আমিনের বাড়ি থেকে লেখাপড়া করতো। সে গাইবান্ধা স্বাধীনতা রজত জয়ন্তী বালিকা বিদ্যালয়ের ৯ম শ্রেণির ছাত্রী।

[৭] গত ১৫ এপ্রিল রাত ৮টায় সিয়ামনি জেলা সদর হাসপাতালের সামনে ওষুধের দোকানে ওষুধ কিনতে যায়। এসময় পূর্ব থেকে ওৎ পেতে থাকা পলাশবাড়ি পৌরসভার ৪নং ওয়ার্ডের জামালপুর গ্রামের শাহানুর মিয়ার পুত্র মেহেদী হাসান সিয়াম ও হরিণমারির রঞ্জু নেংটার পুত্র অপূর্ব মিয়া এবং সিয়ামের মামা গোবিন্দগঞ্জের কাটাখালির বালুয়া এলাকার বুলবুল আহমেদ ও একই এলাকার আশরাফুল ইসলামের পুত্র আবির হোসেন গাইবান্ধায় এসে ডিবি রোড ফায়ার সার্ভিসের সামনে থেকে ওই ছাত্রীকে অপহরণ করে। সম্পাদনা: সাদেক আলী

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত