প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

শেরপুরে বালু মহালে অভিযানে ইউএনও’র উপর হামলা ওগাড়ি-ভাঙচুর, আহত-২

আবু জাহের: [২] বগুড়ার শেরপুরে অবৈধ বালু মহলে অভিযান চালানোর পর ইউএনও’র গাড়ি বহরে হামলার ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় সহকারি কমিশনার (ভূমি) দুই কর্মচারী আহত হয়েছে এবং গাড়ী ভাঙচুর করে।

[৩] শনিবার (৩ অক্টোবর) সন্ধ্যা পৌনে ৬টার দিকে উপজেলার খানপুর ইউনিয়নের বড়ইতলী নলডাঙ্গি এলাকায় বালুদস্যুদের ভাড়াটে লোকজন ঘটনাটি ঘটায়। এসময় ইউএনও’র দুই সদস্য আহত হয়েছেন।

[৪] আহতরা হলেন- উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) অফিসের অফিস সহকারি উজ্জল মোহন্ত ও নৈশ্যপ্রহরী মুঞ্জুরুল হক। তাদেরকে স্থানীয় উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এছাড়া ইউএনও’র গাড়িটিতেও ব্যাপক ভাঙচুর চালানো হয়েছে।

[৫] উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. লিয়াকত আলী সেখ এই তথ্য নিশ্চিত করে জানান, ঘটনার দিন দুপুরের পর থেকেই উপজেলার শেরুয়া বটতলা বাজারসহ বিভিন্ন এলাকায় দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি ঠেকাতে তাঁর নেতৃত্বে বাজার মনিটরিং কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছিল। এসময় খানপুর ইউনিয়নের বড়ইতলী নবীনগর ও নলডাঙ্গি এলাকায় বাঙালি নদী থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের খবর আসে। পরবর্তীতে সেখানে অভিযান চালানো হয়। কিন্তু সেখানে কাউকে না পাওয়ায় অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের সরঞ্জামগুলো খোলা হচ্ছিল। এসময় বালু উত্তোলনকারীদের ভাড়াটে লোকজন সংঘবদ্ধ হয়ে তাদেরকে ঘিরে ফেলেন। একইসঙ্গে চড়াও হন। এমনকি তারা উত্তেজিত হয়ে তাঁর গাড়িতে ভাঙচুর চালায়। এসময় তাঁর সঙ্গে অভিযানে থাকা ওই দুইজন সদস্য বাধা দিতে গেলে তাদেরকে বেধড়ক মারধর করে আহত করা হয়েছে বলে দাবি করেন তিনি। পরে ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ আসার পর হামলাকারীরা পালিয়ে যায়।

[৬] এ প্রসঙ্গে শেরপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) এসএম আবুল কালাম আজাদ ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, খবর পেয়েই অতিরিক্ত পুলিশ নিয়ে তিনি ঘটনাস্থলে যান। একইসঙ্গে ইউএনও স্যারসহ ওই অভিযানের সব সদস্যদের উদ্ধার করেন। পাশাপাশি এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ৬ জনকে আটক করা হয়েছে। তাদের ব্যাপারে খোঁজখবর নেয়া হচ্ছে। উক্ত ঘটনায় জড়িত প্রকৃত কোন অপরাধীকে ছাড় দেয়া হবে না বলে কঠোর হুঁশিয়ারী উচ্চারণ করেন তিনি। এছাড়া এখনো অভিযান থাকায় তিনি পরবর্তীতে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে। সম্পাদনা: হ্যাপি

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত