প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] অর্থনীতি পুনরুদ্ধারে বিশেষ প্রণোদনা, অভ্যন্তরীণ চাহিদা বৃদ্ধি ও বিদেশি বিনিয়োগ বাড়ানোর দাবি

শরীফ শাওন : [২] কোভিড-১৯ সংকট মোকবেলায় আগামী বাজেটে এসব বিষয়ে গুরুত্ত্বারোপ করেছেন বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ, ব্যবসায়ী ও সংশ্লিষ্টরা। রোববার (৭ জুন) ফেডারেশন অব বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (এফবিসিসিআই) আয়োজিত এক ওয়েব সেমিনারে তারা এসব কথা বলেন।

[৩] এফবিসিসিআই সভাপতি শেখ ফজলে ফাহিমের সঞ্চালনায় আলোচনায় উপস্থিত ছিলেন কৃষিমন্ত্রী আব্দুর রাজ্জাক, শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন, বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশী, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান, এফবিসিসিআইয়ের সাবেক সভাপতি এ কে আজাদসহ অনেকে।

[৪] বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. সালেহ উদ্দিন আহমেদ বলেন, ব্যাংকিং খাতে ঋণ প্যাকেজ ঘোষণা সল্প মেয়াদি হলেও এতে অর্থনীতির উন্নতি হবে, ব্যাংক খাতে তারল্য বাড়বে। প্রয়োজনে ৫, ১০ বা ১৫ বছর মেয়াদি এ প্রকল্প বাড়াতে হবে। তিনি বলেন, কর্মসংস্থান বাড়াতে বেসরকারি ঋণ বাড়ানোর বিকল্প নেই।

[৫] এফবিসিসিআই সহসভাপতি সিদ্দিকুর রহমান বলেন, ইতোমধ্যেই ১৪ লাখ কর্মী বিদেশ থেকে ফিরে এসেছেন। তাদের পাশাপাশি দেশের জনগণের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে হবে।

[৬] সেমিনারে বক্তারা বলেন, দক্ষ জনবল সংকটে প্রতিবছর দেশ থেকে ৫ বিলিয়ন অর্থ চলে যাচ্ছে। দেশীয় ইন্ডাস্ট্রিকে সার্পোট দিতে হবে। পণ্য উৎপাদন করে অভ্যন্তরীণ চাহিদা বাড়িয়ে বিদেশেও রপ্তানি করা যাবে। বাংলাদেশকে ইপিজেডের মতো করলে দেশ পাল্টে যাবে। কৃষি খাতে ঋণ প্যাকেজের সুদহার কমাতে হবে। স্বাস্থ্য খাতে বিশেষ গুরুত্ব দিতে হবে। ট্যাক্স হার কমানোর দাবি জানিয়ে বলেন, এতে রেভিনিউ কমে না। ভ্যাট কমিয়ে ক্ষুদ্র উদ্যোক্তাদের বেশি গুরুত্ব দেয়া প্রয়োজন। সম্পাদনা : রায়হান রাজীব

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত