প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] প্রাপ্ত বয়স্ক হওয়ার আগে যৌনতায় নিষেধাজ্ঞা জারি করে তা ‘দেশদ্রোহিতা’ বলে ঘোষণা করেছেন কিম জং উন

ইয়াসিন আরাফাত : [২] অজ্ঞাতবাস কাটিয়ে ফিরে আসার পর থেকেই একের পর এক বিতর্কিত সিদ্ধান্তে জড়িয়ে পড়ছেন উত্তর কোরিয়ার স্বৈরাচারী শাসক কিম জং উন। এবার আরও এক বিতর্কিত নির্দেশ ঘোষণা করেছেন তিনি।

[৩] ব্রিটেনের দ্য এক্সপ্রেস নিউজের এক প্রতিবেদন অনুযায়ী জানা গেছে, আগে থেকেই প্রাপ্ত বয়স্ক হওয়ার আগে যৌনতা আইনত নিষিদ্ধ উত্তর কোরিয়ায়। তবু আইনের ফাঁক গলে যৌনতায় মেতে ওঠে হাইস্কুলের শিক্ষার্থীরা। এই খবর কানে পৌঁছতেই খেপেছেন উত্তর কোরিয়ার স্বৈরাচারী শাসক। নাবালকদের যৌনতার জন্য ‘পশ্চিমা সাম্রাজ্যবাদ’কেই দায়ী করেছেন তিনি। নিজের দেশে এই ধরনের যৌনতায় ইতি টানতেই পুরনো আইনকেই আরও কঠোর করলেন কিম জং উন।

[৪] প্রতিদিনই অতিরিক্ত মাত্রায় যৌনতায় লিপ্ত হচ্ছে দেশটির শিক্ষার্থীরা। হাইস্কুলের শিক্ষার্থীদের এই নেশা থেকে উদ্ধারে কড়া ব্যবস্থা নেয়া প্রয়োজন বলে মনে করছে কিম জং উন।’ পিয়ংইয়ংয়ের এক সূত্রের বরাত দিয়ে এই খবর প্রকাশ করেছে রেডিও ফ্রি এশিয়া।

[৫] এই আইন যাতে যথাযথ ভাবে পালন করা হয় সে লক্ষে স্কুলগুলোকে শিক্ষার্থীদের ব্যবহারিত ফোন বা অন্যান্য ইল্যাক্ট্রনিক যন্ত্রপাতির উপর নজরদারির নির্দেশেও দয়া হয়েছে।সরকারি উদ্যোগে এর জন্য ‘রেড ফ্ল্যাগ’ (Red Flag) নামের একটি অ্যাপ বানানো হয়েছে । অনেকটা জোর করেই শিক্ষার্থীদের ফোন বা ল্যাপটপে এই অ্যাপ ইনস্টল করতে নির্দেশ দিচ্ছে দেশটির স্কুলগুলো। এই অ্যাপের মাধ্যমে পর্ন জাতীয় কোনও সাইটে ইউজার প্রবেশ করলেই, তা রেকর্ড হয়ে যায় এবং স্ক্রিনশট উঠে যায়।

[৬] এছাড়াও যে স্কুলের শিক্ষার্থী যৌনতায় সময় ধরা পড়বে, সেই স্কুলের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীর অভিভাবকের বিরুদ্ধেও কিমের নির্দেশে ব্যবস্থা নেবে দেশটির প্রশাসন।

[৭] পিয়ংইয়ং সূতত্রের বরাত দিয়ে করে দ্য এক্সপ্রেস নিউজ জানিয়েছে, দেশদ্রোহিতার সমান শাস্তির বিধান করায় এবার যৌনতায় ভয় পাচ্ছে কোরিয়ার কিশোর কিশোরীরা।

তথ্য সুত্র : এই সময়

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত