প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

হোমিও চিকিৎসক রুস্তম আলীর দেশে করোনা আমার কেবল ছেলেবেলার কথা মনে পড়ে

আরিফুজ্জামান তুহিন

মোহাম্মদপুরের ১৯/৩ আজম রোডে ৬০ বছরের অভিজ্ঞতাসম্পন্ন হোমিও চিকিৎসক এম রুস্তম আলী আকন্দ দাবি করেছেন, করোনা খুবই ‘সামান্য’ রোগ। এ রোগের চিকিৎসা হোমিও লাইনে আছে। এ জন্য তিনি সুনির্দিষ্ট নয়টি ওষুধের নাম দিয়েছেন। আমি বহু হোমিও ডাক্তারকে দেখেছি তারা অসুস্থ হলে অ্যালোপ্যাথিক ডাক্তারদের কাছে যান। বিবিসি হোমিওপ্যাথি নিয়ে অসাধারণ স্টোরি করেছিলো বেশ কিছুদিন আগে, গোটা জিনিসটা বিবিসি তুকতাক বলে উড়িয়ে দিয়েছে। গণমাধ্যমে পাঠানো তার চিঠিটা এখানে দেওয়ার উদ্দেশ্য হলো হোমিও লাইনে যাদের অগাধ আস্থা তারা যেতে পারেন। আমি কোনো বিশ্বাসী লোকদের ঈমান নিয়ে লজিক দিতে যাই না। ভেবেছি প্রতিদিনের রোজনামচা লিখবো। যদি বেঁচে থাকি তাহলে এই প্রতিদিনকার লেখা নিয়েই জীবনের না লেখা উপন্যাসটা বের করার চেষ্টা করবো। আর মরে গেলে কিছু বলার নেই। প্রতিদিন যা দেখছি সব লিখে রাখবো। এই যে ধরেন হোমিও চিকিৎসক এম রুস্তম আলী আকন্দও সেখানে থাকবে। সেখানে থাকবে আতশবাজির কীভাবে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষ পালন দেখতে হাতিরঝিলে লাখো মানুষ উন্মুখ হয়ে থাকে। কিংবা গণমোনাজাতে লাখ লাখ মানুষের অংশগ্রহণ।
এ সব দিনে আমার কেবল ছেলেবেলার কথা মনে পড়ে। যখন জ্বর হলে পুরান দালানের ছাদ ও ঘুলঘুলি আমার চোখের ভেতর ঢুকে যেতো, একসময় গাড়ো অন্ধকার পুকুরে আমি ডুবে যেতাম। তারপর আমি সাদা সাদা মেঘের ভেতর শুয়ে থাকা অবস্থায় ঘুম ভেঙে যেতো। তারপর লুকিয়ে লুকিয়ে প্রেমপত্র ধর্ম বইয়ের ভেতর চালান করার কারণে খোদ ফেরেশতারাই আমাকে ধর্মে ফেল করে দিলো। উপসাগরীয় যুদ্ধের পরের সে কালে আমার মাথার ভেতরই আসতো না, এতো মানুষ মেরে বুশ কিংবা সাদ্দামকে আল্লাহতায়ালা ফেল করায় না কেন? আমি তো এই মহাপৃথিবীর নশ্বর বান্দা। ধর্ম বইয়ের মধ্যে প্রেমপত্র দেওয়ায় আমাকে কেন ফেল করতে হবে? এরপর বহুকাল কেটে গেছে, চুল পেকেছে। রক্তে সুগার, উচ্চ রক্তচাপ সব কিছু এসে বয়সে ধাক্কা মেরেছে। ঠিক তখন এই অপছন্দের শহরে জানান দিলো করোনা এসে গেছে। ফেসবুক থেকে

সর্বাধিক পঠিত