প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

গাধা, ঘোলা জল ও নির্বাচন কমিশন

চিররঞ্জন সরকার : গাধা নাকি ঘোলা জল পান করে। এটা কেন করেÑ সে সম্পর্কে বিজ্ঞানসম্মত কোনো ব্যাখ্যা পাওয়া যায় না। সমস্যা হলো কোনো মহামহিম গাধাও এখনো পর্যন্ত কাউকে বিষয়টি স্পষ্ট করে জানায়নি। তাই বলে অবশ্য বিষয়টি দুর্জেয় রয়ে যায়নি। আমাদের মতো এমন ‘বিশেষজ্ঞে’র দেশে গাধা বিশেষজ্ঞও একবারে কম নেই। এই স্বনামধন্য গাধা বিশেষজ্ঞদের মতে, গাধা যে ইচ্ছা করেই ঘোলা জল পান করে, তা নয়। গাধা আসলে পরিষ্কার জলই পান করতে চায়। কিন্তু নিজের মূর্খতার কারণে শেষ পর্যন্ত সেটা ঘোলা হয়ে যায়। ব্যাপারটা খোলাসা করেই বলা যাক। সাধারণত গাধারা নদী, পুকুর, ডোবা, খাল-বিলের জল পান করে থাকে। জল পান করতে নেমে গাধা মনে করে জলটা যথেষ্ট পরিষ্কার নয়। এরপর গাধা তার নিজস্ব স্টাইলে জল পরিষ্কারের নামে সেখানে কিছুক্ষণ লাফালাফি, দাপাদাপি করে। এতে জল খুব দ্রুতই ঘোলা হয়ে যায়। এরপর গাধা নিশ্চিন্তে সে জল পান করে। গাধা তার নির্বুদ্ধিতা বা খাসলতের কারণেই ঘোলা জল পান করে।

ঢাকা সিটি করপোরেশন নির্বাচন ইস্যুতে আমাদের নির্বাচন কমিশনও জল ঘোলা করে পান করেছেন। ৩০ জানুয়ারি ঢাকার দুই সিটির নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করেছিলো নির্বাচন কমিশন। ওই দিন সরস্বতী পূজা বলে তফসিল ঘোষণার পর পরই তার বিরোধিতা করেছিলো পূজা উদযাপন পরিষদ, হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। সবাই ভোটের দিন পরিবর্তনের দাবি জানায়। কিন্তু তা আমলে নেয়নি ইসি। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা আন্দোলন শুরু করলে একে ‘অযৌক্তিক’ আখ্যা দেওয়া হয়। কিন্তু সরস্বতী পূজার দিন ভোট না করার পক্ষে জনমত জোরালো হয়ে উঠার প্রেক্ষাপটে ১৮ জানুয়ারি আকস্মিকভাবে জরুরি বৈঠকে বসে ইসি। শেষ পর্যন্ত ভোটের তারিখ পিছিয়ে ১ ফেব্রুয়ারি করা হয়। আমাদের সমাজে কিছু কিছু মানুষ আছে যারা গাধার চেয়ে অধম। কিন্তু সমস্যা হলো তারা যে গাধার চেয়ে অধমÑ এ তথ্যটা তারা নিজেরাও জানে না। অন্য কেউ জানালেও তারা তা মানে না। ফেসবুক থেকে

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত