প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

২০২০ সালে ভারতের অস্ট্রেলিয়া সফর অনেক কঠিন হবে বলে মনে করেন সৌরভ

স্পোর্টস ডেস্ক : চলতি বছরের জানুয়ারিতে প্রথমবারের মতো অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্ট সিরিজ জেতে ভারত। ২০২০ সালে আবারও অস্ট্রেলিয়ায় খেলতে যাবে বিরাট কোহলির দল। গত সিরিজটি সহজে জিতলেও আসন্ন এই সিরিজটি ভারতের জন্য কঠিন চ্যালেঞ্জের হবে বলে মনে করছেন বোর্ড অব কন্ট্রোল ফর ক্রিকেট ইন ইন্ডিয়ার (বিসিসিআই) সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলি। খবর : ক্রিকফ্রেঞ্জি।

নিষেধাজ্ঞার কারণে ২০১৮ সালে ভারতের বিপক্ষে খেলতে পারেননি স্টিভেন স্মিথ ও ডেভিড ওয়ার্নার। ইংল্যান্ড বিশ্বকাপ দিয়ে ওয়ানডে ক্রিকেটে ফিরেছেন এই দুজন। এরপর ইংল্যান্ডের বিপক্ষে অ্যাশেজ সিরিজ দিয়ে টেস্টে প্রত্যাবর্তন হয় স্মিথ-ওয়ার্নারের। সেই সিরিজে ওয়ার্নার ব্যর্থ হলেও ব্যাট হাতে অবিশ্বাস্য পারফরম্যান্স করেন স্মিথ।

পাকিস্তানের বিপক্ষে ঘরের মাঠে লাল বলের ক্রিকেটে ফর্মে ফেরেন ওয়ার্নার। অ্যাডিলেডে ৩৩৫ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলে অস্ট্রেলিয়ার হয়ে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত রানের রেকর্ড গড়েন তিনি। পাশাপাশি বল হাতে দুর্দান্ত ফর্মে রয়েছেন প্যাট কামিন্স, মিচেল স্টার্ক, জস হ্যাজেলউড, জেমস প্যাটিনসনরা। তাই এই অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সিরিজটি নিয়ে ভারতকে সতর্ক করছেন দলটির সাবেক অধিনায়ক গাঙ্গুলি।

তিনি বলেন, ‘এটা আমাদের জন্য বড় চ্যালেঞ্জ হতে যাচ্ছে। আমি নিশ্চিত যে কোহলি নিজেকে এবং অন্যান্যদের এই সিরিজের জন্য প্রস্তুত করছে। সে খুব ভালো করেই জানে যে, ২০১৮ সালের অস্ট্রেলিয়া দল প্রজন্মের সেরা অস্ট্রেলিয়া দল ছিল না। পরবর্তী বছর যে অস্ট্রেলিয়ার সম্মুখীন হতে যাচ্ছে তারা, সম্পূর্ণ ভিন্ন অস্ট্রেলিয়া।’

‘ভারতের এবারের অস্ট্রেলিয়ার সফর ২০১৮ সালের মতো সহজ হবে না। আমি জানি না সে সময় বোর্ড সভাপতি থাকব কিনা। কিন্তু আমি দেখতে চাই আগামী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের পর কোহলিরা ওই সফরে অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়েছে।’ যোগ করেন তিনি।

২০০৩ সালে প্রথমবারের মতো অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্ট সিরিজে চোখে চোখ রেখে লড়েছিল ভারত। সেই সময় বিশ্বের এক নম্বর দলের বিপক্ষে ১-১ ব্যবধানে সিরিজ ড্র করে গাঙ্গুলির দল। ২০২০ সালে সেটার পুনরাবৃত্তি করবে ভারত, বিশ্বাস গাঙ্গুলির।

বর্তমান ভারত দলের সেই সামর্থ্য আছে বলে মনে করেন তিনি। গাঙ্গুলি বলেন, ‘যখন আমি অধিনায়ক ছিলাম, আমাদের লক্ষ্যই ছিল সেরাদের সঙ্গে লড়াই করা। আমার মনে আছে, ২০০৩ সালে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে সেই অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করা ছিল অসাধারণ। এই দলেরও সেই সামর্থ্য আছে। তাদের উপযুক্ত ফাস্ট বোলার আছে, স্পিনার আছে, বিরাট কোহলির মতো চ্যাম্পিয়ন ব্যাটসম্যান আছে।’

সর্বাধিক পঠিত