প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

তিন বছরের মধ্যে পূর্বাচল স্টেডিয়াম করতে চায় বিসিবি

বাংলা ট্রিবিউন :  ঢাকার পূর্বাচলে একটি নতুন স্টেডিয়াম তৈরির উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি), যার নাম হবে শেখ হাসিনা আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়াম। শনিবার বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান জানিয়েছেন, তিন বছরের মধ্যে এই স্টেডিয়ামের নির্মাণ কাজ শেষ করতে চান তারা।

বাংলাদেশের ক্রীড়া সংশ্লিষ্ট সব স্থাপনার মালিক জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ বা এনএসসি। নিয়ম অনুযায়ী, পূর্বাচল স্টেডিয়ামের মালিকানাও এনএসসি’র অধিকারে থাকার কথা। তবে বিসিবি কোনোভাবেই এনএসসি ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়কে সম্পৃক্ত করতে চায়নি এ বিষয়ে। তাই স্টেডিয়ামটি নির্মাণে জটিলতা দেখা দিয়েছিল।

তবে এখন আর কোনও সমস্যা নেই। সরকারের হস্তক্ষেপে দূর হয়েছে সব জটিলতা, এনএসসি’র সঙ্গে ঝামেলা মিটে গেছে বিসিবির। নিজস্ব অর্থায়ন ও ব্যবস্থাপনায় ৫০ হাজার আসনের আন্তর্জাতিক মানের স্টেডিয়াম নির্মাণের সিদ্ধান্ত নিয়েছে ক্রিকেট বোর্ড।

শনিবার বোর্ড সভা শেষে নাজমুল হাসান সংবাদ মাধ্যমকে জানিয়েছেন, ‘আমরা ১০ লাখ টাকায় ৩৭.৪৯ একর জমি পেয়েছি। সেজন্য প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি। আগামী তিন বছরের মধ্যে আমরা এই স্টেডিয়াম তৈরি করতে চাই।’

বোর্ড সভা শেষে কথা বলছেন নাজমুল হাসানমেলবোর্ন ক্রিকেট স্টেডিয়ামের আদলে নতুন স্টেডিয়াম নির্মাণ করতে আগ্রহী বিসিবি সভাপতি, ‘আমরা সম্পূর্ণ নিজস্ব খরচে স্টেডিয়ামটা করতে চাই। এটা হবে স্টেট অফ আর্ট স্টেডিয়াম, অনেকটা মেলবোর্ন স্টেডিয়ামের মতো। দর্শক ধারণ ক্ষমতা হবে কমপক্ষে ৫০ হাজার। ডিজাইনের কারণে খরচও বেশি হবে এই স্টেডিয়ামের।’

মূল স্টেডিয়ামের পাশাপাশি অত্যাধুনিক ক্রিকেট একাডেমি, পর্যাপ্ত অনুশীলন মাঠ, খেলোয়াড়দের আধুনিক আবাসন ব্যবস্থা, বিসিবির সদর দফতর এবং একটি পাঁচ তারকা হোটেল থাকতে পারে। স্টেডিয়ামের পাশে পাঁচ তারকা হোটেল হলে অতিথি দলের ক্রিকেটাররা থাকতে পারবেন সেখানেই।

বিসিবি সভাপতি জানিয়েছেন, ‘স্টেডিয়াম সংলগ্ন একাডেমি, ইনডোর, সুইমিং পুল, জিমন্যাসিয়াম করবো আমরা। একটি পাঁচ তারকা হোটেলও চাই। এছাড়া পূর্ণাঙ্গ ক্রিকেট আর্কাইভ তৈরি করা হবে নতুন ভেন্যুতে।’

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত