প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিধিনিষেধ না মেনে কীটনাশক ও রাসায়নিক সার ব্যবহার করায় দূষিত হচ্ছে পরিবেশ, বাড়ছে স্বাস্থ্য ঝুঁকি

মোহাম্মদ মাসুদ : গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার রঘুনাথপুর ইউনিয়নের দুটি গ্রাম সিয়ানা ও গায়ধানা। ফসল উৎপাদনে সুনাম অর্জন করলেও বিধিনিষেধ না মেনে ব্যবহার করা হচ্ছে কীটনাশক ও রাসায়নিক সার। এতে একদিকে পরিবেশ যেমন দূষিত হচ্ছে, অপরদিকে পরিবেশ থেকে ভোক্তা সবাই পড়ছে স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে। সূত্র : ডিবিসি সংবাদ।

রঘুনাথপুর ইউনিয়নের সিয়ানা ও গায়ধানা গ্রামের যেদিকে চোখ যায় চারদিকে শুধু ফসলের ক্ষেত। এখানে আবাদ হচ্ছে লাউ, টমেটো, শসা, উচ্ছোসহ বিভিন্ন জাতের সবজি। তবে ফসলের পোকামাকড় ও রোগবালাই দমন করতে অবাধে রাসায়নিক সার ও কীটানশক ব্যবহার করছেন কৃষকরা।
দস্তানা, মুখোশ এবং পুরো দেহ আবৃত না রেখে কীটনাশক প্রয়োগ করে সবার আগে কৃষককেই এর পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ায় আক্রান্ত হতে হচ্ছে।
পরিবেশবিদরা বলছেন, শুধু কৃষকরাই নন, এসব কীটনাশকয্ক্তু সবজি খেয়ে ভোক্তারাও সমান স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে পড়ছেন। পাশাপাশি ক্ষতি হচ্ছে পরিবেশেরও।

পরিবেশবিদ মশিউর রহমান বলছেন, মানুষের নানা ধরনের জটিল অসুখের অন্যতম বড় কারণ হচ্ছে ফসলে অতিরিক্ত কীটনাশকের ব্যবহার। এর থেকে বাঁচার জন্য আমাদেরকে জৈব কৃষিতে ফিরে যেতে হবে।
স্থানীয় কৃষি বিভাগ বলছে, সার কোম্পানির প্রচারণায় কৃষক বিষযুক্ত সার ব্যবহার করছেন। তারা বিভিন্ন প্রযুক্তি ব্যবহার করে কৃষককে ফসল উৎপাদনে প্রশিক্ষা দিয়ে যাচ্ছেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত