শিরোনাম

প্রকাশিত : ২৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ০২:৫৭ দুপুর
আপডেট : ২৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ১০:৩৯ রাত

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

পাকিস্তানে ৪ মার্চ প্রধানমন্ত্রী ও ৯ মার্চ প্রেসিডেন্ট নির্বাচন 

ইমরুল শাহেদ: [২] পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফ ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলিতে(জাতীয় পরিষদ) প্রবেশ করা মাত্র পাকিস্তান মুসলিম লীগ-নওয়াজ (পিএমএল-এন) ও পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই) দলের এমপিদের মধ্যে শ্লোগান-পাল্টা শ্লোগান শুরু  হয়ে যায়। প্রায় এক ঘন্টা উত্তেজনাকর পরিস্থিতি চলার পর স্পিকার রাজা পারভেজ আশরাফ কার্যক্রম শুরু করেন। সূত্র: ডন

[৩] নির্বাচনে ব্যাপক কারচুপির অভিযোগের মধ্যেই বৃহস্পতিবার নির্বাচিত এমপিদের শপথ পড়ান স্পিকার রাজা পারভেজ আশরাফ। নবনির্বাচিত সদস্যরাই নতুন স্পিকার ও ডেপুটি স্পিকার নির্বাচন করবেন। এই দুটি সাংবিধানিক পদের জন্য মনোনয়নপত্র প্রদানের কাজ বৃহস্পতিবার স্থানীয় সময় দুপুর ১২টার মধ্যে সম্পন্ন করা হয়। শুক্রবার এ দুটি পদে ভোটাভুটি অনুষ্ঠিত হবে। 

[৪] এরপরই পার্লামেন্ট নির্বাচন করবে দেশের নির্বাহী প্রধান - প্রধানমন্ত্রী। এই পদটির নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে ৪ মার্চ। এই পদের জন্য প্রার্থীদের ৩ মার্চ মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার কাজ সম্পন্ন করতে হবে। জিওনিউজ জানিয়েছে, ৪ মার্চ প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হওয়ার পরপরই সেদিনই তিনি শপথ নিবেন। 

[৫] পাকিস্তান পিপলস পার্টি (পিপিপি), মুত্তাহিদা কওমী ম্যুভমেন্ট-পাকিস্তান (এমকিউএম-পি), পাকিস্তান মুসলিম লীগ-কায়েদ (পিএমএল-কিউ) এবং অন্যান্যরা প্রধানমন্ত্রী প্রার্থী হিসেবে সমর্থন করছে পিএমএল-এন মনোনীত শেহবাজ শরিফকে। এই পদের জন্য পিটিআই মনোনীত করেছে ওমর আইয়ুব খানকে।  

[৬] এদিকে পাকিস্তানের নির্বাচন কমিশন ৯ মার্চের মধ্যে প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠানের প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে জানানো হয়েছে ডনের অপর এক প্রতিবেদনে। এর দুইদিন পরই ছয় বছরের মেয়াদ শেষ করে প্রায় অর্ধেক সিনেটর অবসরে যাবেন। সম্পাদনা: ইকবাল খান

আইএস/আইকে/এইচএ

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়