শিরোনাম
◈ কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের ৮ দাবি, যা বললেন আইনমন্ত্রী ( ভিডিও ) ◈ এখনই কারফিউ তুলে নেয়ার কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ◈ আজ রাতের মধ্যেই ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট চালুর চেষ্টা চলছে: জুনাইদ আহমেদ পলক ◈ হুতি-ইসরাইল মধ্যে উত্তেজনা, মধ্যপ্রাচ্যে বড় যুদ্ধের শঙ্কা ◈ চলমান সহিংসতা ক্ষতির মুখে রফতানি আয়, যা বললেন অর্থনীতিবিদরা ◈ দুর্যোগ ভবনে চালানো তাণ্ডবে ‘পুড়েছে ৫৩ গাড়িসহ মূল্যবান জিনিসপত্র’ ◈ প্রেসিডেন্ট পদের দৌড় থেকে সরে দাঁড়ালেন বাইডেন, কামালা হ্যারিসের নাম প্রস্তাব ◈ বাড়তে পারে সাধারণ ছুটি, তৃতীয় দিনের মত কারফিউ চলছে ◈ শীর্ষ সামরিক-বেসামরিক কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী ◈ ইন্টারনেট বন্ধ থাকায় আটকে পড়েছে মানুষের জীবন-জীবিকাও

প্রকাশিত : ২৫ মে, ২০২৩, ০৫:৩৮ বিকাল
আপডেট : ২৫ মে, ২০২৩, ০৫:৩৮ বিকাল

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

২১ লাখ কোটি টাকার বিকল্প বাজেট প্রস্তাব অর্থনীতি সমিতির

মনজুর এ আজিজ: আগামী ২০২৩-২৪ অর্থ বছরের জন্য ২০ লাখ ৯৪ হাজার কোটি টাকার বিকল্প বাজেট পেশ করেছে অর্থনীতি সমিতি, যা চলতি ২০২২-২০২৩ অর্থ বছরের বাজেটের প্রায় ৩ গুণ।

বৃহস্পতিবার (২৫ মে) সকালে ‘বাংলাদেশ অর্থনীতি সমিতির বিকল্প বাজেট প্রস্তাবনা ২০২৩-২৪: বৈষম্য নিরসনে জনগণতান্ত্রিক বাজেট’ শীর্ষক সংবাদ সম্মেলনে এ প্রস্তাবনা তুলে ধরেন সমিতির সভাপতি আবুল বারকাত। এ সময় সমিতির সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. মো. আইনুল ইসলামসহ অন্যান্য অর্থনীতিবিদরা উপস্থিত ছিলেন। 

আবুল বারকাত বলেন, আমাদের বাজেট সম্প্রসারণমূলক। সরকার আগামী অর্থ বছরে যে বাজেট প্রণয়ন করতে যাচ্ছে, তার আকার ৭ লাখ ৬৪ হাজার কোটি টাকা। সেক্ষেত্রে আসন্ন সরকারি বাজেটের চেয়ে ২ দশমিক ৭ গুণ বড়। আর বর্তমান বাজেটের চেয়ে প্রায় ৩ গুণ বড়। 

তিনি বলেন, ক্রমবর্ধমান মূল্যস্ফীতি, লাগামহীন কর্মবাজার সংকোচন, মহামারি ও ইউরোপ যুদ্ধের অভিঘাতে দেশের অর্থনীতি বড় ধরনের চাপে আছে। এসব বিষয় মাথায় রেখে আগামী বাজেট প্রণয়ন করা হয়েছে। যেখানে পূর্ণ কর্ম নিয়োজন, শিশুর জন্য সুস্থ জীবন, সবার জন্য আবাসন, মূল্যস্ফীতি রোধ এই বিষয়গুলোকে গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। দেশের বেশি সংখ্যক মানুষ বহুমাত্রিক দরিদ্র। ধনী ও অতি ধনীর সংখ্যা ১ শতাংশ। বহুমাত্রিক দরিদ্রের সংখ্যা কোভিডকালের চেয়েও বেড়ে দ্বিগুণ হয়েছে। জিনিসপত্রের দাম বাড়ছে। অন্যদিকে প্রকৃত মজুরি না বাড়ায় জনজীবনে দুর্ভোগ নেমে এসেছে। সঞ্চয় ক্ষমতা হ্রাস পাচ্ছে। মানুষ সঞ্চয় ভেঙে খাচ্ছে।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে অধ্যাপক বারকাত বলেন, কার ভিসা প্রবলেম আমরা বুঝতে পারছি না। দেশে নিম্নবিত্ত ও নিন্মমধ্যবিত্ত প্রায় ৯০ ভাগ মানুষ। এদের যুক্তরাষ্টের ভিসা দরকার নেই। ভিসা দিলে বা ও না দিলেও এদের সমস্যা নেই। বরং এই শ্রেণির মানুষদের ভিসা পেলে সমস্যা, তাহলে যাওয়ার জন্য টাকা-পয়সা খুঁজবে। 

সংবাদ সম্মেলনের ভিডিও কনফারেন্সে দেশের ৬৪টি জেলা, ১৩৫টি উপজেলা এবং ৪৫টি ইউনিয়ন থেকে বাংলাদেশ অর্থনীতি সমিতির সদস্য এবং বিভিন্ন শ্রেণিপেশার প্রতিনিধিরা ভার্চ্যুয়ালি যুক্ত ছিলেন। সম্পাদনা: শামসুল হক বসুনিয়া

এমএ/এসএইচবি/এসবি২

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়