শিরোনাম
◈ সুলতানস ডাইন রেস্টুরেন্ট সিলগালা করলো রাজউক ◈ ব্রহ্মপুত্রের বালুতে হাজার হাজার কোটি টাকার খনিজ সম্পদের সন্ধান ◈ সদ্য কারামুক্ত বিএনপি নেতা আমিনুল হকের বাসায় মঈন খান  ◈ জারদারি নাকি আচাকজাই, কে হবেন পাকিস্তানের পরবর্তী প্রেসিডেন্ট ◈ [১] মিয়ানমারের রাখাইনে আরেকট সেনাঘাঁটি  দখল করেছে আরাকান আর্মি  ◈  নাশকতার মামলায় দণ্ডিত বিএনপি নেতা হাফিজ উদ্দিন কারাগারে ◈ দুইটি বিদেশি পিস্তল, ৮১ রাউন্ড গুলিসহ সেই শিক্ষক গ্রেপ্তার ◈ আর্মি যেকোন পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে প্রস্তুত: প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তা বিষয়ক উপদেষ্টা ◈ শহীদ এম মনসুর আলী মেডিকেল কলেজে স্বাস্থ্য বিভাগের তদন্ত দল ◈ রাজাকারের নতুন তালিকা দুই ভাগে ভাগ করা হবে: মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী 

প্রকাশিত : ২৫ মে, ২০২৩, ১২:৩৪ দুপুর
আপডেট : ২৫ মে, ২০২৩, ০৩:২৭ দুপুর

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

‘উন্নয়ন সমন্বয়’র সেমিনারে বক্তারা

বিড়ি-সিগারেটসহ তামাকজাত সকল পণ্যের শুল্ক বাড়ানোর প্রস্তাব

মোস্তাফিজুর রহমান: বুধবার (২৫ মে) বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্রে গবেষণা প্রতিষ্ঠান - উন্নয়ন সমন্বয় আয়োজিত সেমিনারে বক্তারা এ অভিমত ব্যক্ত করেন।

সেমিনারে শাহিনুল আলমের ( হেড অব প্রোগ্রাম) সঞ্চালনায় বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ও উন্নয়ন সমন্বয়ের চেয়ারম্যান ড. আতিউর রহমান প্রধান বক্তা হিসেবে ভার্চুয়ালি অংশ নেন।

এসময় আতিউর রহমান বলেন, তামাক ও তামাকজাত পণ্যের ব্যবহার হ্রাসের পাশাপাশি বাড়তি রাজস্ব আদায়ের লক্ষে বিড়ি-সিগারেটসহ সকল প্রকার তামাকজাত পণ্যের উপর উচ্চ হারে কর আরোপ দরকার বলে উল্লেখ করেন।

তিনি বলেন, এতে ১৪ লাখ ধূমপায়ী ধূমপান ছেঁড়ে দেওয়ার পাশাপাশি ১০ লাখ তরুণ নতুন ধূমপায়ী হওয়া থেকে বিরত থাকবে ও ১০ লাখ দীর্ঘমেয়াদী ধূমপায়ীকে মৃত্যুর হাত থেকে বাঁচানো সম্ভব হবে।

এছাড়াও সরকার  এ খাত থেকে  ৪২ হাজার কোটি টাকা রাজস্ব আয় করতে পারে যা কিনা গত অর্থবছরের তুলনায় ৩০ শতাংশ বেশি হতে পারে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

উক্ত সেমিনারে সংস্থাটি ভোক্তা পর্যায়ে সকল প্রকার সিগারেটের  ওপর নির্দিষ্ট ৬৫ শতাংশ সম্পূরক শুল্ক আরোপ করার প্রস্তাব দিয়েছে। আর তা বাস্তবায়িত হলে  ১০ শলাকার ১ প্যাকেট নিম্নস্তরের সিগারেটের মূল্য ৪০ টাকা থেকে বেড়ে ৫৫, মধ্যম স্তরের ৬৫ টাকা থেকে বেড়ে ৭০ ও  উচ্চ স্তরে ১১১ টাকা থেকে বেড়ে ১২০ এবং প্রিমিয়াম স্তরের সিগারেটের মূল্য হবে  ১৪২ টাকা থেকে বেড়ে ১৫০ টাকা ।

এছাড়াও ২৫ শলাকার ১ প্যাকেট ফিল্টারবিহীন বিড়ির মূল্য ২০ টাকা থেকে বেড়ে ২৫, ২০ শলাকার ১ প্যাকেট ফিল্টারযুক্ত বিড়ির মূল্য ১৯ টাকা থেকে বেড়ে ২০ টাকা হবে। তবে উভয়ক্ষেত্রে বিক্রয়মূল্যের ওপর ৪৫ শতাংশ নির্দিষ্ট হারে সম্পূরক কর থাকবে।

এছাড়াও ধোঁয়াবিহীন তামাকজাত পণ্য,  জর্দা ও গুলের প্রতি ১০ গ্রামের দাম যথাক্রমে ৪০ থেকে বেড়ে ৪৫ টাকা ও ২০ থেকে বেড়ে ২৫ টাকা হবে।

সেমিনারে উপস্থিত অন্যান্য অথিতিদের মধ্যে সংসদ সদস্য মৃণাল কান্তি দাস পরিবার থেকে ধূমপানের বিরুদ্ধে প্রতিরোধের পাশাপাশি তামাক চাষকে নিরুৎসাহিত করার আহ্বান জানান।

আলোচনা সভায় অন্যান্যদের মধ্যে সংসদ সদস্য মনোয়ার হোসেন চৌধুরী, সংসদ সদস্য লুৎফুন্নেসা খান, বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ ড. হেলাল আহমেদ, বিশিষ্ট পরিবেশবাদী স্থপতি ইকবাল হাবিব, ড. সৈয়দ আব্দুল হামিদ, সৈয়দ ইউসুফ সাদাত, সাবেক ফুটবলার ও রাজনীতিবিদ আব্দুর গাফফার সহ প্রমুখ ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। সম্পাদনা: জাফর খান

এমআর/জেকে/এএ

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়