শিরোনাম
◈ তিস্তায় নৌকাডু‌বিতে শিশু নিহত ◈ নৌকাডুবিতে নিখোঁজ অভিবাসীর খোঁজে তল্লাশি চালাচ্ছে ইতালির কোস্টগার্ড ◈ উড়তে থাকা যুক্তরাষ্ট্রকে মাটিতে নামিয়ে আনলো দক্ষিণ আফ্রিকা ◈ ১৪ দিনে রেমিট্যান্স এলো ১৬৪ কোটি ডলার ◈ শরীয়তপুরে চেম্বার থেকে আইনজীবীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার ◈ বিশ্বকাপের সুপার এইট শুরু, শুক্রবার অস্ট্রেলিয়ার মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ   ◈ সেনাবাহিনী প্রধানের ৯, ১৭ ও ৩৩ পদাতিক ডিভিশনে বিদায়ী দরবার ◈ নরেন্দ্র মোদির আমন্ত্রণে শেখ হাসিনা শুক্রবার দিল্লি যাচ্ছেন, ২২ জুন শীর্ষ বৈঠক ◈ দেশ ছাড়িনি, চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুরে আছি: আছাদুজ্জামান মিয়া  ◈ আগ্রাসনের বিরুদ্ধে উত্তর কোরিয়া-রাশিয়া একে অপরকে সাহায্য করবে, কৌশলগত অংশীদারত্ব চুক্তি সই

প্রকাশিত : ১১ জুন, ২০২৪, ০৪:২৬ দুপুর
আপডেট : ১১ জুন, ২০২৪, ০৪:২৬ দুপুর

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

ধর্ষণ মামলায় টিকটকার মামুনের রিমান্ড আবেদন না-মঞ্জুর

এম.এ. লতিফ: [২] মঙ্গলবার (১১ জুন) লায়লা আক্তার ফারহাদের (৪৮) দায়ের করা ধর্ষণ মামলায় টিকটকার আব্দুল্লাহ আল মামুন ওরফে প্রিন্স মামুনকে (২৫) সাত দিনের রিমান্ডে নিতে আবেদন করে পুলিশ। মামুনের পক্ষে তার আইনজীবী রিমান্ড বাতিল ও জামিন চেয়ে আবেদন করেন। উভয় পক্ষের শুনানি শেষে ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মামুনুর রশীদ রিমান্ড ও জামিন আবেদন না-মঞ্জুর করে আসামিকে কারাগারে প্রেরণের আদেশ দেন।

[৩] রিমান্ড আবেদনে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ক্যান্টনমেন্ট থানার এসআই মুহাম্মদ শাহাজাহান উল্লেখ করেন, আসামি বিভিন্ন প্রকার টিকটক ভিডিও তৈরি করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়। যা দেখে যুব সমাজ অশালীন ও অশোভন আচরণের দিকে ধাবিত হচ্ছে।

[৪] রিমান্ড আবেদনে আরও উল্লেখ করা হয়, মামলাটির প্রাথমিক তদন্তে গ্রেফতারকৃত আসামি প্রিন্স মামুন ঘটনার সঙ্গে জড়িত আছে বলে যথেষ্ঠ তথ্য প্রমাণ পাওয়া যাচ্ছে। আসামি প্রিন্স মামুনের বিষয়ে তথ্য অনুসন্ধানে জানা যায় যে, সে বিভিন্ন প্রকার টিকটক ভিডিও তৈরি করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যেমে ছড়িয়ে দেয়। যা দেখে যুব সমাজ অশালীন ও অশোভন আচরণের দিকে ধাবিত হচ্ছে। তার এই অল্প বয়সে কে বা কাহারা তাকে এসব অপকর্ম করতে সহায়তা করছে তার তথ্য উপাত্ত সংগ্রহ ও মামলাটি সুষ্ঠু তদন্তের স্বার্থে ও মূল রহস্য উদঘাটনের লক্ষ্যে ধৃত আসামিকে নিবিড়ভাবে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৭ দিনের রিমান্ডে নেওয়া প্রয়োজন।

[৫] রোববার (৯ জুন) বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণের অভিযোগ এনে প্রিন্স মামুনের বিরুদ্ধে রাজধানীর ক্যান্টনমেন্ট থানায় মামলা করেন টিকটকার লায়লা। সোমবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে কুমিল্লার পুলিশ মামুনকে গ্রেফতার করে।

[৬] মামলার অভিযোগে লায়লা বলেন- বিবাদী আব্দুল্লাহ আল মামুন ওরফে প্রিন্স মামুনের সঙ্গে তার ৩ বছর আগে ফেসবুকের মাধ্যমে পরিচয় হয়। পরিচয়ের একপর্যায়ে মামুন লাইলাকে বিয়ে করবে মর্মে প্রলোভন দেখিয়ে তার সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক স্থাপন করে। মামুন লায়লাকে জানায়, তার ঢাকায় থাকার মতো নিজস্ব কোনো বাসা নেই। যেহেতু প্রেমের সম্পর্ক সৃষ্টি হয় এবং মামুন লায়লাকে বিয়ে করবে বলে জানায়, তাই তার কথা সরল মনে বিশ্বাস করে মামুনকে লায়লা তার বাসায় থাকার অনুমতি দেয়।

[৭] ৭ জানুয়ারি, ২০২২ মামুন তার মাকে সঙ্গে নিয়ে লায়লার বাসায় এসে বসবাস করতে থাকে। ওইদিন থেকেই মামুন লায়লার সঙ্গে একই রুমে থাকতে শুরু করে এবং বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে একাধিকবার লায়লার সঙ্গে শারীরিক সর্ম্পক করে। মামুন লায়লার বাসায় থাকাকালে তার বাবা-মা মাঝেমধ্যেই সেখানে এসে অবস্থান করতো। লায়লা মামুনকে একাধিকবার বিয়ের বিষয়ে বললে মামুন বিভিন্ন অজুহাতে সময়ক্ষেপণ করতে থাকে।

[৮] সর্বশেষ চলতি বছরের ১৪ মার্চ মামুন আবার লায়লাকে ধর্ষণ করে। পরবর্তী সময়ে লায়লা মামুনকে বিয়ের বিষয়ে বললে মামুন ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে এবং লায়লাকে বিভিন্ন অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করে। সম্পাদনা: কামরুজ্জামান

এসবি২

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়