প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] সাতক্ষীরা হাসপাতালে স্ত্রীর মরদেহ রেখে পালিয়েছে স্বামী

শেখ ফরিদ:[২] সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে স্ত্রী শম্পা বেগমের মরদেহ ফেলে পালিয়েছে স্বামী হবিবর রহমান সরদার। শম্পা বেগমকে বিষ খাইয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন তার স্বজনরা।

[৩] নিহত সম্পা বেগম (২২) সাতক্ষীরা সদরের রাজনগর গ্রামের বাবলু সরদারের মেয়ে ও ইন্দ্রিরা গ্রামের হবিবর রহমান সরদারের স্ত্রী। রবিবার (১৮ এপ্রিল) রাতে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে শম্পা বেগমের মৃত্যু হয়।নিহত গৃহবধূ শম্পার স্বজনদের অভিযোগ তার স্বামী হবিবর রহমান সরদার তাকে বিষ খাইয়ে হত্যা করেছেন।

[৪] নিহত শম্পার চাচাতো ভাই আবুল কাশেম সাংবাদিকদের জানান, হবিবর একজন চিহ্নিত মাদক চোরাকারবারি। দীর্ঘদিন ধরে হবিবর সরদারের সাথে পারিবারিক কলহের কারণে শম্পা তার বাবার বাড়িতে অবস্থান করছিলেন। রোববার সকালে তিনি স্বামীর বাড়িতে গিয়েছিলেন। সেখানে যাওয়ার পর তারা তাকে জোর করে বিষ খাইয়ে দেয়।

[৫] পরে হবিবর রহমান নিজে শম্পাকে সদর হাসপাতালে নিয়ে আসেন। হাসপাতালে রেখে স্বামী হবিবর পালিয়ে যায়।তিনি আরও জানান, শম্পা বেগম ও হবিবর সরদারের রিয়াদ নামের পাঁচ বছর বয়সী একটি ছেলে রয়েছে।সাতক্ষীরা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বোরহান উদ্দিন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, লাশ মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়না তদন্তের রিপোর্ট ছাড়া কোন কিছু বলা যাচ্ছে না।সম্পাদনা:অনন্যা আফরিন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত