প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

দীপক চৌধুরী : শক্তিধর গোষ্ঠীর মুখে ছাই দিয়ে এগিয়ে যাচ্ছেন শেখ হাসিনা

দীপক চৌধুরী : কীভাবে বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনাকে পেছনে ফেলা যায় এ কৌশল গত চার দশকের। ১৯৮১ সালে দেশে ফিরে রাজনীতিতে প্রবেশের শুরু থেকে। এরপরও পাহাড়সম বাধার মুখেও যখন তাঁকে ঠেকানো সম্ভব হ”িছল না তখন একমাত্র পরিকল্পনা তৈরি করা হয়, কীভাবে শেখ হাসিনাকে দুনিয়া থেকে তুলে নেওয়া যায়। দল গঠন করা হলো ‘ফ্রিডম’ পার্টি। তারা ‘হত্যা’ করার সবরকম প্রস্ততি নিয়েছিল। ঊনিশবার হত্যা চেষ্টা চালানো হয়। ‘ফ্রিডম’ পার্টির শক্তিহীনতার পর নতুন পরিকল্পনা। মৌলবাদদের তৈরি করা হয়। জঙ্গি সৃষ্টি করা হয়। অবশেষে ২০০৪-এর একুশ আগস্ট। কথায় আছে ‘রাখে আল্লাহ্ মারে কে?’
নারীর ক্ষমতায়ন রুখে দিতে কী না করা হয়েছিল। পুলিশ সার্জেন্ট নারী হতে পারবে না। কারণ ‘সিগন্যাল’ দিতে হাত উঁচিয়ে রাখতে হবে নারী সার্জেন্টকে। পরিকল্পিতভাবে পিছিয়ে রাখা প্রাণের দেশে বিরাট পরিবর্তন শুরু হয় জনগণের ভোটে প্রধানমন্ত্রিত্বের চেয়ারে শেখ হাসিনা বসার পর। এ ভূখণ্ডে নারী স্পিকার, নারী স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, নারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী, সংসদে নারী বিরোধীদলীয় নেত্রী পাওয়াসহ গুরুত্বপূর্ণ পদে নারীকে বসানো সম্ভব হয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কারণেই। এদেশে স্বাধীনতার স্থপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য ভেঙে ফেলা, স্থাপনের বিরোধিতাও হয়েছে। কী রকম ভয়ংকর ইচ্ছা! কোভিড-১৯এর ভ্যাকসিন নিয়ে কী কম হয়েছে? ভ্যাকসিন নিয়ে পরিকল্পিতভাবে নানা বিতর্ক করানো হয়েছে, গুজব ছড়ানো হয়েছে। শুরুতে ‘ওরা’ প্রচার করেছিল, এই ভ্যাকসিন আদৌ আসবে কি, নাকি আসবে না? এলে পরে এত দাম হলো কেন? এটা কি করে চলবে? নরেন্দ্র মোদির ভারত সরকারের মনের কথা কী আমরা জানি? বাংলাদেশের আওয়ামী-বিরোধীদলগুলো এটি নিয়ে… মতো আতঙ্ক ছড়িয়েছে। টার্গেট সাধারণ মানুষ। মানুষের মনের ভেতর ভয় ঢুকিয়ে ‘রাজনীতি’ করার নামে একধরনের ধুম্রজাল সৃষ্টি করেছে তারা। কিছুদিন আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘আমাদের দুর্ভাগ্য হলো যে, কিছু কিছু লোক থাকে, সবকিছুতেই একটা নেতিবাচক মনোভাব তারা পোষণ করে। যতই ভালো কাজ করেন, সবসময় তাদের কিছু ভালো লাগে না। এরকম ‘ভালো না লাগা’ রোগে ভোগে তারা। এ রোগের কী চিকিৎসা আছে আমি জানি না।’ করোনা ভ্যাকসিন নিয়ে মানুষের মধ্যে ছড়ানো সবরকম বিভ্রান্তি, অপপ্রচার ও মিথ্যাচার প্রমাণ হয়েছে। ইউরোপের বিভিন্ন দেশে ‘ভ্যাকসিন’ নিয়ে যেখানে এখন হাহাকার চলছে সেখানে এদেশে বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনার কূটনৈতিক দক্ষতায় দ্রুতসময়ে ‘ভ্যাকসিন’ এসেছে, প্রথমে নিয়েছেন গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিরা, এখন সাধারণ মানুষ নিচ্ছেন । তাঁর সুদক্ষতা ও সাফল্য প্রমাণ হয়েছে।
লেখক : উপসম্পাদক, আমাদের অর্থনীতি ও কথাসাহিত্যিক

 

সর্বাধিক পঠিত