প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] চোরাই মোবাইল ক্রয় করে ফেঁসে যেতে পারেন আপনিও !

রাজু চৌধুরী : [২] চট্টগ্রাম নগরীর কোতোয়ালী থানাধীন বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে মোবাইল চোর ও ছিনতাইকারী এবং চোরাই মোবাইল বিক্রির সঙ্গে জড়িত চক্রের মোট ১১ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

[৩] বৃহস্পতিবার (৩ ডিসেম্বর) সিএমপি কোতোয়ালী থানায় ব্রিফিংয়ে মেট্রোপলিটন পুলিশ (সিএমপি) এর অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (দক্ষিণ) পলাশ কান্তি নাথ সাংবাদিকদের জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে এসি (কোতোয়ালী জোন) নোবেল চাকমার নেতৃত্বে টিম কোতোয়ালী থানাধীন পুরাতন রেল স্টেশন, নতুন রেল স্টেশন ও নিউমার্কেট এলাকায় অভিযান চালিয়ে মোবাইল চোর ও ছিনতাইকারী এবং চোরাই মোবাইল বিক্রির সঙ্গে জড়িতদের গ্রেপ্তার করে।

[৪] তিনি আরও জানান, পুরাতন রেল স্টেশন এলাকা থেকে মো.ফজলুল করিম ও শাহ আলমকে আটকের পর তাদের কাছ থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী বাকি আসামীদের গ্রেপ্তার করা হয়। সেই ১১ জন হলেন, মো. ফজলুল করিম (৩৫), মো. শাহ আলম (৩০), মহিউদ্দিন (২৭), ইয়াকুব হোসেন সাইমুন (১৯), রাজিব হোসেন (২৭), মো. সাজ্জাদ (২২), মিজানুর রহমান রাকিব (২০), মো. শাহাদাত (২২), শাকিল (২৪), দুলাল (২০) এবং রবিন (২৩)।

[৪] সিনিয়র সহকারী কমিশনার (কোতোয়ালী জোন) নোবেল চাকমা বলেন, গোপন তথ্যের ভিত্তিতে এসআই ধর্মেন্দু দাশ, এসআই মোঃ মোমিনুল হাসান, এসআই পলাশ চন্দ্র ঘোষ, এএসআই অনুপ কুমার বিশ্বাস, কং মোঃ দেলোয়ার হোসেন মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন সমন্বয়ে টিম নিয়ে এই অভিযান পরিচালনা করা হয়।

[৫] তিনি বলেন চোরাই মোবাইল ক্রয় করে ফেঁসে যেতে পারেন যেকোন কেউ, ক্রেতাকে সতর্ক ও সচেতন হওয়া উচিৎ। কোতোয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মহসীন বলেন, আটককৃতরা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছে, কোতোয়ালী এলাকায় চুরি ছিনতাইয়ে জড়িত ১২টি সক্রিয় গ্রুপ এবং চোরাই মোবাইল বিক্রির সঙ্গে জড়িত ৫০ জন ব্যবসায়ী এর সবাই একটি চক্রের সদস্য।

[৬] অনেকেরই জড়িত থাকার ব্যাপারে তথ্য পেয়েছি এবং গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। ওসি মহসীন বলেন, চোরাই মার্কেটে প্রতিটি স্মার্টফোনগুলো অর্ধেক দামে বিক্রি করা হয়। বৈধ কাগজপত্র বিহীন এসব মোবাইল ফোন ক্রেতারা নিজেদের অজান্তে বিপদে পড়েন। লোভে পড়ে চোরাই মোবাইল ফোন ক্রয় না করার অনুরোধ জানিয়ে একটু সচেতন হতে পরামর্শ দেন ওসি মহসীন।

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত