প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] করোনায় আঙ্কারার মেয়রের জনপ্রিয়তা তুঙ্গে

ডেস্ক রিপোর্ট : [২] তুরস্কের রাজধানী আঙ্কারার মেয়র মনসুর ইয়াভাস মরণঘাতী করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে সৃষ্ট সমস্যা মোকাবেলায় যোগ্যতা তথা সফলতার প্রমাণ দিয়েছেন। লকডাউনের কারণে চাকরিচ্যুতদের পাশে দাঁড়িয়ে দিয়েছেন নেতৃত্বের পরিচয়। যার কারণে মানুষের মধ্যে তার জনপ্রিয়তা এখন তুঙ্গে।

[৩] আরব নিউজের বিশেষ এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ইউসুফ ডেরিন (৪৫) নামে আঙ্কারার এক নাগরিক লকডাউনের কারণে চাকরিচ্যুত হয়েছেন। একটি রেস্টুরেন্টে কাজ করতেন তিনি। পরিবারে কোনো খাবার না থাকার বিষয়টি তাকে অন্য উপায় খুঁজে বের করতে বাধ্য করেছে। এখন আঙ্কারার রাস্তায় একটি ফ্লাস্ক নিয়ে চা বিক্রি করছেন তিনি। যাতে পরিবারের সদস্যদের মুখে একমুঠো খাবার তুলে দিতে পারেন।

[৪] ডেরিনের এই অবস্থা আঙ্কারায় বসবাসরত দশ হাজারের বেশি মানুষের অবস্থারই প্রতিচ্ছবি। এদের কেউ কেউ দারিদ্র্যসীমার নিচে বসবাস করছেন।

[৫] তাদের এই পরিস্থিতি থেকে বের করে আনতে ত্রাতার ভূমিকায় অবতীর্ণ হন মেয়র ইয়াভাস। লকডাউনের কারণে ক্ষতিগ্রস্তদের বিষয়ে দ্রুত পদক্ষেপ নিতে কর্মকর্তাদের নির্দেশনা দিয়েছেন তিনি। চাকরিচ্যুতদের নতুন করে চাকরি দেয়ার নির্দেশনা দিয়েছেন।

[৬] ইয়াভাসের এই নির্দেশনার সুফল পেতে যাচ্ছেন ডেরিন। এর জন্য মেয়র ও তার প্রশাসনের কর্মকর্তাদের ধন্যবাদ জানিয়েছেন তিনি। শুক্রবার আরব নিউজকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে ডেরিন বলেন, মেয়র আমাকে ডেকে চাকরির সুখবর দিয়েছেন। তিনি আমার জন্য একটি চাকরির ব্যবস্থা করেছেন, যাতে আমি পরিবারের সদস্যদের জন্য খাবারের ব্যবস্থা করতে পারি। আমার বড় মেয়ে কিছু দিন আগে তার গ্রাজুয়েশন শেষ করেছে। তাকেও চাকরি দেয়া হবে আশ্বস্ত করেছেন মেয়র।

[৭] জানা যায়, আঙ্কারার মেয়রের নির্দেশে রমজান মাসে সংকটে পড়া হাজার হাজার পরিবারকে খাবার দিয়ে সহায়তা করা হচ্ছে।নাগরিকদের অনেকেই বলছেন, করোনাভাইরাসের কারণে সৃষ্ট সঙ্কট মোকাবেলায় প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেপ এরদোয়ানের চেয়েও ভালো নেতৃত্বের পরিচয় দিয়েছেন ইয়াভাস।

[৮] গত এপ্রিলে তুরস্কের পরিস্থিতি নিয়ে মেট্রোপোলের এক গবেষণায়ও একই দাবি করা হয়েছে। তারা বলছে, দেশটির অন্যান্য স্থান থেকে রাজধানী আঙ্কারার পরিস্থিতি অনেক যোগ্যতার সঙ্গে মোকাবেলা করা হয়েছে। এর জন্য তারা মেয়রের সঠিক দিক-নির্দেশনার প্রশংসা করে।

[৯] ওই গবেষণায় বলা হয়, মহামারিতে সমাজের বিভিন্ন শ্রেণির মানুষের পাশে দাঁড়ানো এবং সংকটে পড়া মানুষকে সাহায্য করার কারণে তুরস্কের এক নম্বর জনপ্রিয় ব্যক্তি ইয়াভাস। তার রেটিং ৮.১৮। যেখানে তুর্কি প্রেসিডেন্টের জনপ্রিয়তার রেটিং পয়েন্ট ৬.৬৫।টুয়েন্টিফোরলাইভ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত