প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আমরা সাধারণ মানুষরা বিনা চিকিৎসায় মরি, আপনারা বাসায় থাকুন এবং সুস্থ থাকুন!

মো. সামসুল ইসলাম : ডাক্তার ভাইবোনদের কার্যকলাপ দেশের জনগণ গভীর মনোযোগের সঙ্গে দেখছে। মিডিয়াতে আসছে, ফেসবুকে পোস্ট দিয়ে জনগণ তাদের দুঃসহ অভিজ্ঞতার কথা জানাচ্ছে। ভালো-মন্দ যাই করছেন আমরা ভুলবো না। সব কুছ ইয়াদ রাকখা যায়েগা। চীন, যুক্তরাজ্য, ইতালি, ফিলিপাইন প্রভৃতি দেশে অনেক ডাক্তার করোনা রোগীদের সেবা দিতে গিয়ে মারা গেছেন। অনেক দেশে অবসরপ্রাপ্ত ডাক্তার-নার্সরা সেবা দিতে নাম রেজিস্টার করছেন। সম্প্রতি প্রথম আলোতে সাংবাদিক হাসান ফেরদৌস লিখেছেন যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ভলান্টিয়ারদের কথা। আমদের দেশেও অনেক ভলান্টিয়ার গরিবদের সাহায্যে এগিয়ে আসছেন। উল্টো তাদের সতর্ক করতে হচ্ছে সুরক্ষা নেওয়ার জন্য। করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে যুদ্ধে আপনারা প্রধান সৈনিক। অথচ আপনারা রোগী দেখছেন না। সাধারণ ঠা-া জ্বরকেও করোনাভাইরাস ভেবে রোগীদের চিকিৎসা করছেন না। আপনারা জানেন দূষিত বাতাসের কারণে দেশে কতো শ্বাসকষ্টের রোগী। কিন্তু আপনারা ফিরিয়ে দিচ্ছেন। অনেকে মারা যাচ্ছে। পরে জানা যাচ্ছে তারা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ছিলো না। আপনারা চোখমুখ ফুলিয়ে বলেছেন লাঠিছাড়া যুদ্ধক্ষেত্রে যাবেন কীভাবে। আপনাদের পিপিই বা মাস্ক দেওয়ার পরও আপনাদের ভয় কাটছে না।
মুক্তিযুদ্ধের সময় তরুণেরা খালি হাতে বাসা ত্যাগ করেছিলো। দেশ সেবায় নিজের জীবন দিয়ে দিয়েছিলো। ভারতে কেরালার একটা ডাক্তার মেয়ে তার বিয়ে পিছিয়ে দিয়েছে করোনা রোগীর সেবা করার জন্য। বাংলাদেশে এ পর্যন্ত কোনো ডাক্তার করোনা রোগে মারা যাননি। দুই একজন আক্রান্ত হয়েছেন, কিন্তু সুস্থ হয়ে যাবেন হয়তো তাড়াতাড়ি। অথচ দেখেন দেশের অসংখ্য ওষুধের দোকানে ফার্মাসিস্টরা খুব কম সুরক্ষাতেই রোগীদের সেবা দিয়ে যাচ্ছেন। আপনারা অনেকে চেম্বারেও যাওয়া ছেড়ে দিয়েছেন। মানুষের কী যে ভোগান্তি হচ্ছে। করোনারা চেয়ে অন্য রোগীরাই এখন বেশি ভোগান্তিতে পড়েছেন। আমরা সাধারণ মানুষরা বিনা চিকিৎসায় মরি। আপনারা বাসায় থাকুন সুস্থ থাকুন। এ জাতি আপনাদের ভুলবে না। সব কুছ ইয়াদ রাকখা যায়েগা। ফেসবুক থেকে

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত