প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] করোনামুক্ত থাকতে জেনে নিন নিরাপদ টাকার ব্যবহার (ভিডিও)

টিভিএনএ রিপোর্ট: [২] টাকায় নানা ধরণের জীবাণুর উপস্থিতি শনাক্ত করার ঘটনা নতুন নয়। টাকার মাধ্যমে সংক্রামক নানা রোগ ছড়িয়ে পড়ার কথা আগে থেকে বলছেন বিশেষজ্ঞরা।

[৩] সম্প্রতি খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবেশ বিজ্ঞানের শিক্ষক অধ্যাপক ড. আবদুল্লাহ হারুন চৌধুরী গবেষণা করে টাকায় এমন ধরণের ব্যাকটেরিয়ার উপস্থিতি পেয়েছেন, যা সাধারণত মলমূত্রের মধ্যে থাকে। যা মানবদেহের জন্য ক্ষতিকারক।

[৪] তিনি মনে করেন এসব মুদ্রার মাধ্যমে করোনাভাইরাসের সংক্রমণও ছড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। যেহেতু টাকায় বিভিন্ন ধরণের ব্যাকটেরিয়া পেয়েছি যা মানুষের অন্ত্রে নানা ধরণের রোগ সৃষ্টি করে তাই এর মাধ্যমে এই ভাইরাস ছড়িয়ে পড়াটাও স্বাভাবিক। টাকা বা ডলার ব্যবহার ও আন্তর্জাতিক বিনিময়ের মাধ্যমে করোনাভাইরাস শুধু একটি দেশের মধ্যে নয় বরং বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে পড়তে পারে এবং এটি মারাত্মক আকার ধারণ করতে পারে।

[৫] তিনি আরও বলেন, যেহেতু এটা সরাসরি মানুষ হাত দিয়ে ধরে, অনেক সময় মুখের থুথু নিয়ে কাউন্ট করে। তাই এর মাধ্যমে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়তে পারে।

[৬] এজন্য ব্যাংক নোট এড়িয়ে স্পর্শবিহীন মাধ্যম যেমন বিভিন্ন অ্যাপস বা প্রযুক্তি ব্যবহার যেমন ক্রেডিট কার্ড বা এটিএম কার্ড ব্যবহার করে কেনাকাটা বা লেনদেন করার পরামর্শ দিয়েছেন।

[৭] এছাড়া জাতীয় রোগ তত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানের সাবেক পরিচালক মাহমুদুর রহমান বলেন, ভাইরাসটি যাতে অতিমাত্রায় ছড়িয়ে পড়তে না পারে সেজন্য ব্যাংক নোট ব্যবহারের ক্ষেত্রে কিছু পরামর্শ দিয়েছেন। যেমন-

– টাকা গোনার সময় হাত দিয়ে মুখের লালা নেয়া যাবে না।
– ব্যাংক নোট বা টাকা নাড়াচাড়ার পরপরই অবশ্যই সাবান দিয়ে হাত ধুয়ে ফেলতে হবে। যারা বেশি মুদ্রা নাড়াচাড়া করেন, যেমন ব্যাংক কর্মী বা মানি এক্সচেঞ্জ ব্যবসায়ীরা, তাদেরকে অবশ্যই অতিরিক্ত সতর্ক থাকতে হবে। তারা দস্তানা বা গ্লাভস পরে নিতে পারেন।
– সতর্কতা হিসেবে হ্যান্ড স্যানিটাইজারও ব্যবহার করতে পারেন।
– টাকা ধরা বা ব্যবহারের পর পরই চোখে, নাকে বা মুখে হাত দেয়া যাবে না।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত