প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

adv 468x65

সাতক্ষীরা সরকারি মেডিকেলের ১০ বস্তা চিকিৎসা সামগ্রী মাটির নিচ থেকে উদ্ধার

হ্যাপি আক্তার : সাতক্ষীরা মেডিক্যাল কলেজ অ্যান্ড হাসপাতালের মাটির নিচ থেকে বিপুল পরিমাণ ওষুধ, গজ ও ব্যান্ডেজ উদ্ধার করা হয়েছে। লুকিয়ে রাখা এসব ওষুধের পরিমাণ কমপক্ষে ১০ বস্তা। এর মধ্যে বিভিন্ন ধরনের ওষুধ রয়েছে যার মেয়াদ ২০২২ সাল পর্যন্ত। ইনডিপেনডেন্ট টেলিভিশন।

বৃষ্টির পানিতে ধুয়ে লুকিয়ে রাখা ওষুধগুলো মাটির নিচে বেরিয়ে পড়ে। গতকাল শনিবার দুপুরে হাসপাতালের পেছনের রান্না ঘরের পাশ থেকে এসব চিকিৎসা সামগ্রী উদ্ধার করা হয়।
ঘটনাস্থলে এক্সরোল, এসেনসিয়াল ড্রাগের ফলিক এসিড, ভিটামিন বি-কমপ্লেক্স অ্যান্টিবায়োটিক এজিথ্রোমাইসিন-৫০০এমজি, এসকেএফের কিলম্যাক্স-২৫০ এমজিসহ বিভিন্ন ওষুধ দেখা যায়।
সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোস্তাফিজুর রহমান জানান, লুকিয়ে রাখা এসব ওষুধগুলো সরকারি। এসব ওষুধের এখনো মেয়াদ রয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, একটি চক্র ওষুধ পাচারের চেষ্টা করে। তবে স্থানীয়দের তাড়া খেয়ে তারা হাসপাতালের পেছনে সেগুলো মাটি চাপা দেয়। বৃষ্টি হলে মাটি সরে যায়। এতে পাচার হওয়া চিকিৎসা সামগ্রী স্থানীয়দের চোখে পড়ে।
সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের তত্ত¡াবধায়ক ডা. মো. শাহজাহান আলী বলেন, ক্যান্টিনের পেছনে সেপটিক ট্যাংকের পাশে বহু টাকা মূল্যের এ ওষুধ মাটি চাপা দেওয়া ছিলো। বৃষ্টির পানিতে ভিজে তা বেরিয়ে পড়ে।
সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক কেএম মোস্তফা কামাল বলেন, বিষয়টি নিয়ে মেডিকেল কলেজ এন্ড হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করা হবে।

এদিকে সাংবাদিকদের উপস্থিতি টের পেয়ে তড়িঘড়ি করে দরজায় তালা লাগিয়ে সটকে পড়েন হাসপাতালের তত্বাবধায়ক ডাঃ শাজাহান আলী। সম্পাদনা : রাশিদ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত