প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

প্রথম টি-টোয়েন্টিতে দুই ‘টিমের’ কাছে হারলো ভারত

স্পোর্টস ডেস্ক : টেস্ট ও ওয়ানডে সিরিজ জয়ের পর তাসমান দ্বীপে টি- টোয়েন্টি সিরিজ খেলতে নেমেছিল ভারতীয় ক্রিকেট দল। যে ওয়েলিংটনে ওডিআই সিরিজ শেষ করেছিল সেখান থেকেই টি-টোয়েন্টি সিরিজ শুরু করেছে ভারত-নিউজিল্যান্ড। তিন ম্যাচ সিরিজের প্রথম টি-টোয়েন্টিতে স্বাগতিকদের কাছে ৮০ রানে হেরেছে রোহিম শর্মার দল। নিউজিল্যান্ডের দুই টিমের (টিম সেইফার্ট ও টিম সাউদি) কাছে পরাস্ত হয়েই হারতে হলো ভারতকে। টিম সেইফার্টের ৮৪ রান ও টিম সাউদির ৩ উইকেটে বড় জয় দিয়ে সিরিজ শুরু করেছে ব্ল্যাকক্যাপসরা।

ওয়েলিংটনে টস জিতে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ডকে আগে ব্যাটিংয়ের আমন্ত্রণ জানান ভারতীয় অধিনায়ক রোহিত শর্মা। আগে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ২১৯ রান করেছে নিউজিল্যান্ড। ভারতের বিপক্ষে এই ফরম্যাটে যা যৌথভাবে সর্বোচ্চ। ২২০ জবাবে খেলতে নেমে ৪ বল বাকি থাকতে ১৩৯ রানেই গুটিয়ে গেছে টিম ইন্ডিয়া। ৮০ রানের হার দিয়েই কুড়ি-বিশের সিরিজ শুরু হলো তাদের।

ব্যাটিংয়ের শুরুতে নিউজিল্যান্ডকে দারুণ সূচনা এনে দেন দুই ওপেনার কলিন মুনরো এবং টিম সেইফার্ট। ৫০ বলে ৮৬ রানের জুটি গড়েন মুনরো-সেইফার্ট। ২টি করে চার-ছক্কা মেরে ২০ বলে ৩৪ রান করে আউট হন মুনরো। মুনরো ফেরার পর অধিনায়ক উইলিয়ামসনকে নিয়ে দ্বিতীয় উইকেটে সেইফার্ট যোগ করেন আরও ৪৮ রান। শুরু থেকেই দারুণ খেলতে থাকা সেইফার্ট সেঞ্চুরির খুব কাছে গিয়ে ব্যর্থ হয়েছেন। ৪৩ বলে ব্যক্তিগত ৮৪ রানের মাথায় খলিল আহমেদের বলে বোল্ড হয়ে যান তিনি।

নিউজিল্যান্ডের হয়ে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৩৪ রানের ইনিংস আসে অধিনায়ক উইলিয়ামসনের ব্যাট থেকে। শেষদিকে রস টেলরের ১৪ বলে ২৩ এবং স্কট কুগলেনের ৭ বলে ২০ রানের ইনিংসে ভর করে ২১৯ রানে থামে কিউইরা। ভারতের হয়ে হার্দিক পান্ডিয়া সর্বোচ্চ ২টি এবং ভুবনেশ্বর, খলিল, ক্রুনাল ও চাহাল ও পান্ডিয়া একটি করে উইকেট নেন।

২২০ রানের জবাবে খেলতে নেমে কিউই বোলারদের সামনে দাঁড়াতেই পারেনি টিম ইন্ডিয়া। রোহিত শর্মা (১), ঋষভ প্যান্ট (৪), দিনেশ কার্তিক (৫) ও হার্দিয়া পান্ডিয়ারা (৪) সাজঘরে ফেরেন নামের প্রতি অবিচার করে। শিখর ধাওয়ান (২৯) ও বিজয় শঙ্কর (২৭) জুটি বাঁধার চেষ্টা করলেও তাতে লাভ হয়নি। ধোনি সর্বোচ্চ ৩৯ রানের ইনিংস খেললের বাকি ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায় রানের চাকা ঘোরেনি। শেষদিকে ক্রুনাল পান্ডিয়া ২০ রান করে হারের ব্যবধানটাই কমিয়েছিল।

স্বাগতিকদের হয়ে বল হাতে সবাই জ্বলে উঠতে চেয়েছিলেন। বল হাতে যে আক্রমনে এসেছেন সেই উইকেচের দেখা পেয়েছে। টিম সাউদি ৪ ওভারে ১৭ রানে তিন উইকেট নিয়েছেন। লুক ফার্গুসন, মিচেল স্যান্টনার ও ইশ সোধি দুটি করে এবং অভিষিক্ত ডার্লি মিচেল একটি উইকেট নেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত