শিরোনাম

প্রকাশিত : ২৬ মে, ২০২৩, ০৪:৪৬ দুপুর
আপডেট : ২৬ মে, ২০২৩, ০৪:৪৬ দুপুর

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

ফিলিস্তিনিদের অধিকার আদায়ে পাশে থাকবে চীন

ইমরুল শাহেদ: জাতিসংঘে নিযুক্ত চীনের স্থায়ী ডেপুটি আবাসিক প্রতিনিধি গেং শুয়াং ইসরায়েলকে ফিলিস্তিনি ভূমি ও সম্পদ দখল না করার আহবান জানিয়েছেন। বুধবার তিনি নিরাপত্তা পরিষদে ফিলিস্তিন-বিষয়ক মুক্ত সম্মেলনে এ আহ্বান জানান। সিজিটিএন 

তিনি ফিলিস্তিনসহ মধ্যপ্রাচ্যের পরিস্থিতি ব্যাখ্যা করে বলেন, আমরা ইসরায়েলকে অবিলম্বে এই পদক্ষেপগুলো বন্ধ করার এবং ফিলিস্তিনি জনগণের জমি ও সম্পদের উপর দখল বন্ধ করার আহ্বান জানাচ্ছি।

গেং শুয়াং বলেন, অধিকৃত অঞ্চলে অবৈধ বসতি স্থাপন এখনই বন্ধ করতে হবে।

তিনি বলেন, বসতি স্থাপনের মাধ্যমে আন্তর্জাতিক আইন ও জাতিসংঘের ২৩৩৪ নম্বর রেজ্যুলেশনের স্পষ্ট লঙ্ঘন। এই বছরের শুরু থেকে ইসরায়েল রিটার্ন অনুমোদন, নতুন বসতি নির্মাণ এবং বসতি বৈধ করার বিষয়ে একতরফা পদক্ষেপ অব্যাহত রেখেছে।

তিনি আরও বলেন, জেরুজালেমের ধর্মীয় পবিত্র স্থানের ঐতিহাসিক অবস্থাকে সম্মান ও রক্ষা করতে হবে। বাধা না দিয়ে মুসলিমদেরকে সেখানে ইবাদত করার অধিকার এবং ধর্মীয় পবিত্র স্থানের শান্তি রক্ষায় জর্ডানের অধিকারকে সম্মান করতে হবে।

গেং শুয়াং বলেন, আন্তর্জাতিক মানবিক আইনকে সম্মান করতে হবে। সংশ্লিষ্ট সব পক্ষের উচিত বেসামরিক নাগরিকদের ওপর সহিংসতা এবং স্কুল ও হাসপাতালসহ গণ-অবকাঠামোকে হামলার লক্ষ্য বানানো বন্ধ করা।

চলতি বছরের শুরু থেকে শিশুসহ শতাধিক ফিলিস্তিনি সংঘাতে প্রাণ হারিয়েছেন। সব পক্ষের উচিত সাধারণ নাগরিকদের বিরুদ্ধে সমস্ত সহিংসতা বন্ধ করা।  এসময় তিনি ফিলিস্তিনি গৃহহীনদের দুর্দশার পাশাপাশি তাদের অর্থনৈতিক ও জীবিকার চাহিদা মেটানোর কথাও তুলে ধরেন তিনি। 

ফিলিস্তিনকে চীন সব ধরনের নৈতিক অধিকারে সমর্থন দিয়ে যাবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমরা সবসময় ফিলিস্তিনের জনগণের পাশে থাকবো। তাদের ন্যায়সঙ্গত জাতীয় অধিকার পুনরুদ্ধারের জন্য আমাদের সমর্থন তাদের সঙ্গে থাকবে।

এছাড়াও তিনি বলেন, ১৯৬৭ সালের জেরুজালেমের সঙ্গে সীমানার ভিত্তিতে ফিলিস্তিনকে স্বাধীন ও সার্বভৌম রাষ্ট্র হিসেবে প্রতিষ্ঠায় তাদের পাশে থাকবে চীন। সম্পাদনা: জাফর খান

আইএস/এসএ

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়