প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে দেয়া হবে ‘৮০ লাখ ডোজ টিকা’: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

শিমুল মাহমুদ: [২] কোভিড-১৯ মহামারি প্রতিরোধে চলমান টিকাদান কার্যক্রমের পাশাপাশি ‘বিশেষ এই কর্মসূচির’ কথা জানিয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেন, আমরা এর আগেও ভ্যাকসিন ক্যাম্পেইন করেছিলাম। এবারো ২৮ তারিখে এই ক্যাম্পেইন চলবে। এদিন মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন। সেজন্য এদিন ক্যাম্পেইন শুরু করছি।

[৩] তিনি বলেন, বর্তমানে প্রতিদিন যে ৬ লাখ ডোজ টিকা দেয়া হচ্ছে তাও চলবে। গ্রামে-গঞ্জে আমরা টিকা নিয়ে যাচ্ছি। যারা দূরে থাকেন, দরিদ্র জনগোষ্ঠী, বয়স্ক এবং যারা সব সময় টিকা নিতে আসতে পারেন না তাদেরকে টিকার আওতায় আনাই উদ্দেশ্য।

[৪] বিশেষ এই কর্মসূচির আওতায় কারা টিকা পাবেন জানতে চাইলে জাহিদ মালেক বলেন, ২৫ বছরের ঊর্ধ্বে যারা টিকার জন্য নিবন্ধন করেছেন তারা। তবে ৪০ বছরের ঊর্ধ্বে নারী-পুরুষ, শারীরিক প্রতিবন্ধী ও দুর্গম এলাকার বাসিন্দারা অগ্রাধিকার পাবেন।

[৫] সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জানান, মঙ্গলবার ৪ হাজার ৬০০ ইউনিয়ন, এক হাজার ৫৪টি পৌরসভা, সিটি করপোরেশনের ৪৪৩টি ওয়ার্ডে সকাল ৯টা থেকে একযোগে টিকাদান চলবে। প্রতিটি ইউনিয়নে তিনটি বুথ, পৌরসভায় একটি ও সিটি করপোরেশনের ওয়ার্ডে তিনটি করে বুথ থাকবে। টিকাদান কার্যক্রমে অংশ নেবেন ৩২ হাজার ১০৬ জন স্বাস্থ্যকর্মী। পাশাপাশি ৪৮ হাজারের বেশি স্বেচ্ছাসেবী টিকাদান কর্মসূচিতে সহায়তা করবেন।

[৬] সম্প্রসারিত টিকাদান কর্মসূচির (ইপিআই) প্রোগ্রাম ম্যানেজার ডা. মাওলা বক্স চৌধুরী জানান, জাতীয় পরিচয়পত্র নিয়ে এলেও এই ক্যাম্পেইনে সিনোফার্ম টিকা দেয়া হবে।

[৭] স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, সৌদি আরবগামী বাংলাদেশি কর্মীরা যাতে দেশটির সব ধরনের শর্ত পূরণ করতে পারেন, সে বিষয়ে তাদের পূর্ণ সহযোগিতার থাকবে। রোববার দুপুরে ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে এক প্রশ্নের জবাবে এ আশ্বাস দেন তিনি।

[৮] তিনি বলেন, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) এখনো বুস্টার ডোজের অনুমোদন দেয়নি। আমরা ডব্লিউএইচও’র নিয়মনীতি মেনে কাজ করি। যদি সে ধরনের পরিস্থিতির উদ্ভব হয়, যেমন: সৌদি আরবে যেতে বুস্টার ডোজ লাগবে, সেক্ষেত্রে অবশ্যই আমরা বিষয়টি বিবেচনা করবো এবং ডব্লিউএইচওসহ যেখানে কথা বলা প্রয়োজন আমরা বলবো।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত