প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] কতিপয় রাজনীতিবিদ করোনা ছড়াতে সহযোগিতা করেছেন: মাহবুব উল আলম হানিফ

সমীরণ রায়: [২] আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ আরও বলেন, দেশে করোনাভাইরাস প্রাদুর্ভাব যখন দেখা দেয়, তখন কতিপয় রাজনীতিবিদ প্রেসক্লাবের সামনে হাজার হাজার লোক নিয়ে সমাবেশ করেছেন। এসব সমাবেশের মধ্য দিয়ে তারা করোনা ছড়িয়ে দিতে সহযোগিতা করেছেন। এছাড়া তথাকথিত আলেম নামধারী বক্তারা করোনা নিয়ে সুপরিকল্পিতভাবে মানুষকে বিভ্রান্ত করেছেন।

[৩] তিনি বলেন, করোনায় সারা পৃথিবী বিপর্যস্ত। যুক্তরাষ্ট্রের মতো ধনী দেশে সাত লাখ মানুষ মারা গেছে। এ সময়ে সরকারের পাশাপাশি শিল্পপতি, ব্যবসায়ীদের মানুষের পাশে দাঁড়াতে হবে। পার্শ্ববর্তী রাষ্ট্র ভারতে তাদের ব্যবসায়ীরা, শিল্পপতিরা মানুষ ও সরকারের পাশে দাঁড়িয়েছে।

[৪] তিনি আরও বলেন, দেশের শিল্পপতিরা মানুষের পাশে সেভাবে দাঁড়িয়েছেন বলে জনগণ দেখছে না। শিল্পপতি, ব্যবসায়ীদের অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানোর আহ্বান জানাই। যে সম্পদ আছে, তা নিয়েই সবাইকে একসঙ্গে করোনা দুর্যোগ মোকাবেলা করতে হবে। জীবন ও জীবিকা দুটোর মধ্যে সমন্বয় রেখে শেখ হাসিনার সঠিক সিদ্ধান্তে করেনা মোকাবেলায় সফল হচ্ছি।

[৫] হানিফ বলেন, করোনার পাশাপাশি নতুন করে সমস্যা দেখা দিয়েছে ডেঙ্গু। ডেঙ্গু যেন মহামারি রূপ না নেয়, সেজন্য স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় ও সিটি করপোরেশনের এখনই পদক্ষেপ নেওয়া প্রয়োজন। বাসাবাড়িতে পানি জমে এডিস মশা জন্ম নিচ্ছে কি না, এজন্য বিভিন্ন জায়গায় পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে। বিভিন্ন মানুষকে সচেতন করার জন্য জরিমানা করা হচ্ছে। নিঃসন্দেহে এটি একটি ভালো কাজ। তবে আপনি একটা বাড়িতে বা প্রতিষ্ঠানে গিয়ে পানি জমছে কি না তা পরিদর্শন ও জরিমানা করছেন। কিন্তু সিটি করপোরেশনের অধীনে শত শত ড্রেন নর্দমা আছে, সেখান থেকে অসংখ্য মশা জন্ম নিচ্ছে ।
[৬] তিনি বলেন, সেজন্য জনগণ কার বিরুদ্ধে মামলা করবে, কাকে ফাইন করবে? একটা একটা বাড়িতে গিয়ে অভিযান বা পরিদর্শন করা, জরিমানা করা এটা সমাধান নয়। সমাধানের জন্য মেয়ের সাহেবদের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে হবে। সিটি করপোরেশনে যে ড্রেন নর্দমা খাল আছে, সেগুলো নিয়মিত পরিষ্কার করে মশার ওষুধ দিতে হবে। মশা নিধনে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে হবে। অন্যথায় করোনার মধ্যে ডেঙ্গু মহামারি আকারে দেখা দিতে পারে। করোনা থেকে মুক্তি পেতে দুটি পথ খোলা আছে। সবাইকে টিকা দিতে হবে। এতে অ্যান্টিবডি তৈরি হবে। আগামী ডিসেম্বরের মধ্যে ৮০ ভাগ মানুষকে টিকা দেওয়া সম্ভব হবে। এর আগে সবাইকে মাস্ক পরতে হবে।

[৭] রোববার রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন প্রাঙ্গণে ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ ও ম্যাক্স গ্রুপের উদ্যোগে অক্সিজেন সাপোর্ট সেন্টার উদ্বোধন অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

[৮] আইইবির সভাপতি মো নুরুল হুদার সভাপতিত্বে আরও বক্তব্য রাখেন তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান, আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক মো. আব্দুস সবুর প্রমুখ।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত