প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার দাবিতে ১২ ছাত্র সংগঠনের হুঁশিয়ারি

শরীফ শাওন: [২] শিগগিরই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার দাবিসহ চাকরিতে প্রবেশে বয়সের সময় বাড়ানোর দাবি জানিয়ে শিক্ষার্থীরা বলেন, দাবি না মানলে এবং শিক্ষার্থীদের প্রতি এমন দায়িত্বহীন আচরণ অব্যাহত রাখলে সারাদেশে ক্ষোভের বিস্ফোরন ঘটবে। এতে কোনো অনাকাঙ্খিত পরিস্থিতির সৃষ্টি হলে তার দায়ভার সকরারকেই বহন করতে হবে।

[৩] মঙ্গলবার যৌথ বিবৃতিতে ছাত্র নেতারা বলেন, দীর্ঘ সময় স্কুল-কলেজ বন্ধ থাকায় শিক্ষার্থীদের ওপর বিরূপ প্রভাব পড়ছে। শিক্ষার্থীরা পড়ালেখায় মনোযোগ ও আগ্রহ হারাচ্ছে। অন্যদিকে শিশু-কিশোরদের মোবাইল এবং ইন্টারনেটের প্রতি আসক্তি বাড়ছে। তরুণ-যুবকরা অহেতুক অতিরিক্ত সময় ইন্টারনেটে কাটাচ্ছে। এতে করে অনেকের আচরণগত সমস্যা হচ্ছে, মানসিক ও মেধার বিকাশ বাধাগ্রস্ত হচ্ছে। অনেকেই অনৈতিক কার্যকলাপ, নেশা ও উশৃঙ্খলতায় জড়িয়ে যাচ্ছে। উঠতি বয়সী শিক্ষার্থীদের মধ্যে কিশোর গ্যাং নামক ধ্বংসাত্মক সংস্কৃতির প্রসার ঘটছে।

[৪] অতিরিক্ত হারে সেশন ফি-সহ অন্যান্য ফি-জরিমানা, বেতন বহাল রাখা হয়েছে। করোনা পরিস্থিতিতে বিভিন্ন খাতে হাজার হাজার কোটি টাকা প্রণোদনা দিলেও শিক্ষার্থীদের প্রতি তাদের নূন্যতম কোনো দায়বদ্ধতা নেই।

[৫] করোনায় দেশের শিক্ষা ব্যবস্থার প্রতি সরকারের অবহেলা ও উদাসীনতায় জাতি গভীরভাবে উদ্বিগ্ন। এমন অবস্থা অব্যাহত থাকায় শিক্ষার্থীরা তাদের ভবিষ্যৎ নিয়ে শঙ্কিত এবং মানসিকভাবে বিপর্যস্ত। সরকার ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রশাসনের কাণ্ডজ্ঞানহীন সিদ্ধান্ত শুধু শিক্ষার্থীদের নয় বরং পুরো দেশবাসীকে বিক্ষুব্ধ করে তুলেছে।

 

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত