প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] রাজধানীতে ২৬ দিন থেকে ১৬ বছরের শিশুরা করোনায় আক্রান্ত হয়ে ভর্তি হচ্ছে হাসপাতালে

শাহীন খন্দকার: [২] শেরে বাংলা নগর শিশু হাসপাতালে ২০ এপ্রিল পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত শিশু ভর্তি হয়েছে ২১৫ জন, চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরে গেছে ১৮৭ জন। পরীক্ষা হয়েছিল ৩ হাজার ২০০ জনের। মারা গেছে ১৩ জন যাদের বয়স ছিলো ৫ থেকে ১৫ বছরের মধ্যে। করোনা আক্রান্ত মা-বাবারা দুশ্চিন্তামুক্ত থাকলেও সাম্প্রতিক হিসাব বলছে,সাবধানতার সময় এসেছে।

[৩] গত বছর বহির্বিভাগে ২০ নভেম্বর পর্যন্ত পরীক্ষা হয়েছিল ৮৩৩ শিশুর। শনাক্ত হয়েছে ১৭০ জন। একদিনে পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে ১০ শিশুর। অক্টোবরের প্রথম সপ্তাহে শিশু হাসপাতালের করোনা আক্রান্ত রোগী ছিল ১০। নভেম্বরের প্রথম সপ্তাহে সেটা হয়েছে ১৬ জন। অক্টোবরের দ্বিতীয় সপ্তাহে ছিল পাঁচ আর নভেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহে ২৩ জন।

[৪] হাসপাতালের উপপরিচালক ডা.প্রবীর কুমার সরকার জানান, গত বছর ১৩ জুলাই শিশু হাসপাতালে কোভিড ওয়ার্ড চালু হয়। করোনা আক্রান্ত বেশিরভাগেরই বয়স পাঁচ বছরের নিচে। সম্প্রতি চাইল্ড হেলথ রিসার্চ ফাউন্ডেশন (সিএইচআরএফ) ও শিশু হাসপাতাল যৌথ উদ্যোগে এক গবেষণা করে ২৮ দিনের কম বয়সী শিশুদের নিয়ে। মার্চের শুরু থেকে ৮৪টি শিশুকে নিয়ে করা এ গবেষণায় দেখা যায় ২৬ জন শিশুর করোনা শনাক্ত হয়।

[৫] আইইডিসিআর-এর উপদেষ্টা ও মহামারি বিশেষজ্ঞ ডা. মুশতাক হোসেন বলেন,আইইডিসিআর জানিয়েছে শূন্য থেকে ১০ বছরের শিশুর আক্রান্তের সংখ্যা শতকরা তিন। অর্থাৎ ১০০ জনে ৩ জন শিশু আক্রান্ত হচ্ছে আর মারা যাচ্ছে হাজারে ৩ জন। যে কোনও বয়সের মানুষ আক্রান্ত হতে পারে মন্তব্য করে তিনি বলেন, পরিবারের বড়দের মাধ্যমে শিশুরা আক্রান্ত হচ্ছে কিনা সেটাই ভাববার এখন। কারণ শিশুরা তো বাহিরে যায় না। তাই পরিবারের অন্য সদস্যসহ মায়েরা বাহির থেকে এসেই শিশুদের স্পর্শ করার আগে সাবান পানি দিয়ে ভালোভাবে হাত ধুয়ে নিতে হবে। গোসল করে নিলে আরও ভালো। সম্পাদনা : রাশিদ

সর্বাধিক পঠিত