প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

নাজনীন আমমেদ: যেকোনো জরুরি অবস্থায় যাতে দরিদ্র মানুষকে সহযোগিতা করা যায় সেরূপ বাজেট প্রস্তুতি থাকতে হবে

নাজনীন আমমেদ: ২০২১-২২ অর্থবছরের বাজেট কাঠামো কেমন হওয়া দরকার সেই নীতিগত সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য ১১ এপ্রিল অর্থমন্ত্রী  আ হ ম মুস্তফা কামাল আলোচনায় বসেছিলেন অর্থনীতিবিদদের সঙ্গে।  অর্থ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব আব্দুর রউফ তালুকদারের সঞ্চালনায় পরিচালিত এই সভায় প্রফেসর রেহমান সোবহান, বিআইডিএস-এর মহাপরিচালক ড. বিনায়ক সেন-সহ দেশের প্রথিতযশা বেশ ক’জন অর্থনীতিবিদ ও গবেষক উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও ছিলেন সাবেক অর্থমন্ত্রী সাইদুজ্জামান, বাংলাদেশ ব্যাংকের বর্তমান ও অতীতের তিনজন গভর্নর, সাবেক অর্থ সচিবসহ আরও ক’জন বিশেষজ্ঞ। এই জ্ঞানী-গুণীদের সভায় আমারও আমন্ত্রণ ছিলো মতামত দেওয়ার জন্য। আমি যে মতামত দিয়েছি তা দু-তিন দিনের মধ্যে বিস্তারিত আসবে একটি পত্রিকায়। কিন্তু মূলত যা বলেছি তাহলো, আসন্ন ২০২০-২১ সালের বাজেট প্রণয়নে মনে রাখতে হবে যে, আমাদের অর্থনীতি এখনো কোভিডের প্রথম ধাক্কা সামলে উঠতে পারিনি, অন্যদিকে শুরু হয়েছে দ্বিতীয় দফা চ্যালেঞ্জ ।

তাই এ বাজেটে মানুষের খাদ্য নিরাপত্তা, কর্মসংস্থানের নিরাপত্তা, চাকরি হারানো শ্রমিকদের জন্য ক্যাশ সহায়তা, ক্ষুদ্র ও মাঝারি উদ্যোক্তাদের জন্য বিশেষ সহযোগিতা প্যাকেজ (যা অনানুষ্ঠানিক খাতের উদ্যোক্তাদের অন্তর্ভুক্ত করবে) ইত্যাকার বিষয় প্রাধান্য দিতে হবে। অনলাইন শিক্ষার সুযোগ যেন স্বল্পআয়ের পরিবারের ছেলেমেয়েরা নিতে পারে সেজন্য বিভিন্ন রকম অনলাইন শিক্ষা সামগ্রী বিনামূল্যে অথবা স্বল্পমূল্যে দেওয়ার ব্যবস্থা করতে হবে। সেইসঙ্গে স্বাস্থ্যবিধি মানার জন্য প্রয়োজনীয় স্বাস্থ্য সামগ্রী বিতরণ ও এ বিষয়ক সচেতনতামূলক কর্মসূচি সারাবছর অব্যাহত রাখতে বাজেট বরাদ্দ থাকতে হবে। যেকোনো জরুরি অবস্থায় যাতে দরিদ্র মানুষকে সহযোগিতা করা যায় সেরূপ বাজেট প্রস্তুতি থাকতে হবে। ফেসবুক থেকে

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত